অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

লিবিয়ায় অস্ত্র বিরতির জন্যে জাতিসংঘের আহ্বান


লিবিয়ায় অস্ত্র বিরতির জন্যে জাতিসংঘের আহ্বান

লিবিয়ায় অস্ত্র বিরতির জন্যে জাতিসংঘের আহ্বান

লিবিয়ার পশ্চিমাঞ্চলে প্রচন্ড লড়াইয়ে বেশ কিছু লোকের প্রাণহানির পর জাতিসংঘ লিবিয়ায় অবিলম্বে অস্ত্র বিরতির আহ্বান জানিয়েছে।

জাতিসংঘের মহাসচিব বান কী মুন এবং মানবিক বিষয়ে সংগঠনের শীর্ষ দূত ভ্যালেরি আমোস ঐ সংঘর্ষের মাত্রা এবং এর ফলে অসামরিক লোকজনের প্রাণহানির বিষয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

মোয়ামামার গাদ্দাফির অনুগত সৈন্যরা গতকাল মিসরাটায় যে গোলা নিক্ষেপ করেছে এবং চোরাগুপ্তা গুলি চালিয়েছে , তাতে সেখানে ১৭ জন প্রাণ হারায়। ান্যদিকে রকেট ও গোলার আক্রমোণে পুর্বাঞ্চলীয় শহর আজদাবিয়া থেকে বিদ্রোহী যোদ্ধা ও অসামরিক লোকজন পালানো শুরু করে।

সাত সপ্তা ধরে সরকারী বাহিনী দ্বারা অবরুদ্ধ মিসরাটায় অন্তত ৪৭ জন আহত হয়েছে।

জাতিসংঘ এবং লিবিয়ার কর্মকর্তারা বলছে ন যে মিসরাটায় ত্রাণ কর্মিরা যাতে নিরাপদে বেরুতে পারেন সে জন্যে তাদের মধ্যে সমঝোতা হয়েছে।

এ দিকে বিরোধী নেতাদের গঠিত জাতীয় ট্রানসিশানাল কাউন্সিলের মুখপাত্র মুস্তফা ঘেরিয়ানি

বলেন আমরা একেবারে গোড়া থেকে দেশ গড়ে তোলার কাজ করছি আর এর প্রমাণ হচ্ছে দেশের পুর্বাঞ্চল খুব ভাল ভাবে পরিচালিত , গাদ্দাফি শাসিত অঞ্চলের চাইতে আরও ভাল ভাবে।

এ দিকে ঢাকা থেকে আমাদের সংবাদদাতা আমির খসরু জানিয়েছেন যে লিবিয়া থেকে বাংলাদেশে ফিরে যাওয়া প্রত্যেককে সরকার কমাক্ষে পঞ্চাশ হাজার টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেবে।

XS
SM
MD
LG