অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

আইনজীবীর অভিযোগ: বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের রিজার্ভের অর্থ চুরির ঘটনায় ফেডারেল ব্যাংক অফ নিউইয়র্কের কার্যক্রম ও পরিচালনা পদ্ধতিতে দায়িত্বহীনতা ও যথেষ্ট ত্রুটি ছিল


FILE - Commuters pass by the front of the Bangladesh central bank building in Dhaka.

FILE - Commuters pass by the front of the Bangladesh central bank building in Dhaka.

বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের রিজার্ভের অর্থ চুরির ঘটনায় ফেডারেল ব্যাংক অফ নিউইয়র্কের কার্যক্রম এবং পরিচালনা পদ্ধতিতে দায়িত্বহীনতা ও যথেষ্ট ত্রুটি ছিল এমন অভিযোগ উত্থাপন করেছেন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংক নিযুক্ত আইনজীবী আজমালুল হোসেন কিউসি। তবে ফেডারেল ব্যাংক অফ নিউইর্কের বিরুদ্ধে কোনো মামলা বা আইনি পদক্ষেপ নেয়া হবে কিনা সে সম্পর্কে তিনি কোনো মন্তব্য করেননি। মঙ্গলবার সাংবাদিকদের ব্রিফিংয়ে তিনি ওই অভিযোগ উত্থাপন করেন।

বিরোধী দল বিএনপি বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের অর্থ চুরির ঘটনায় এক বিশেষ পর্যালোচনা সভা আয়োজন করে বলেছে, যে অর্থ খোয়া গেছে তা সাইবার হ্যাকিং নয়, ডিজিটাল পদ্ধতির ডাকাতি।

এদিকে, ফিলিপাইনের সিনেট কমিটির তৃতীয় দফা শুনানিতে বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের রিজার্ভের অর্থ চুরির ঘটনায় মূল সন্দেহভাজন চীনা ব্যবসায়ী কিম অং নিজেকে নির্দোষ উল্লেখ করে দু’জন বিদেশী নাগরিক ওই অর্থ ফিলিপাইনে এনেছেন এবং তারাই দোষী বলে দাবি করেছেন। তবে চীনা ব্যবসায়ী কিম অং বলেছেন, তার একটি একাউন্টে ৪৬ লাখ ৩০ হাজার ডলার রয়েছে তা তিনি ফেরত দিতে চান। ওই টাকা ফেরত দেয়ার জন্য তিনি বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের কথা উল্লেখ করেন।

ঢাকা থেকে আমীর খসরু বিস্তারিত জানিয়েছেন তার রিপোর্টে।

XS
SM
MD
LG