অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

শরীফ-উল-হক
ঢাকা রিপোর্টিং সেন্টার
সহযোগিতায়- ইউএসএআইডি এবং ভয়েস অফ আমেরিকা

হঠাৎ তীব্র মাথা ব্যাথা অথবা বমি বমি লাগছে। শ্বাস কষ্টের সাথে মাথা ঘুরেও পড়ে যেতে পারেন আপনি। যদি এরকম কোন লক্ষণ দেখা দেয়, বুঝবেন উচ্চ রক্তচাপে ভুগছেন আপনি। এটি একটি রোগ যার ফলে হার্ট স্ট্রোক ঝুঁকি অনেক বেড়ে যায়।

বরাবরের মত এ বছরও বিশ্বব্যাপী এবং বাংলাদেশে ১৭মে পালিত হচ্ছে ‘বিশ্ব উচ্চ রক্তচাপ দিবস’। ২০১৩ থেকে ২০১৮ পর্যন্ত ‘বিশ্ব উচ্চ রক্তচাপ দিবস’ এর জন্য একটি সাধারণ প্রতিপাদ্য নির্ধারিত হয়েছে। তা হল, ‘জানুন আপনার নম্বর’।

স্কয়ার হাসপাতালের মেডিসিন ইউনিটের মেডিকেল অফিসার ডা. রিয়াজুল করিম রাজ, আমাদের বললেন কি এই উচ্চ রক্তচাপ। শরীরে যখন রক্তের চাপ বেড়ে যায় তখন সাধারণত তাকে উচ্চ রক্তচাপ বলা হয়ে থাকে। মানুষের শরীরে রক্তের চাপ মাপা হয় সিস্টোলিক এবং ডাস্টোলিক এই দুটি পরিমাপে। একজন সুস্থ্য মানুষের রক্তচাপ ১৪০/৯০ এর মধ্যে থাকলে সঠিক বলে ধরে নেয়া যায়। কিন্তু এর চেয়ে উপরে চলে গেলে কিংবা রক্তের চাপ ১৪০/৯০ হলেই উচ্চ রক্তচাপ বলে ধরা হয়। রক্তের নালী সংকুচিত হয়ে গেলে অথবা রক্তনালী ব্লক হয়ে যাওয়া উচ্চ রক্তচাপের অন্যতম কারণ হিসেবে বিবেচিত হয়।
অনেক ক্ষেত্রেই এই রোগটি নীরবেই বাসা বাঁধে আমাদের শরীরে। তবে কিছু কিছু লক্ষণ এর মাধ্যমে প্রকাশ পায় উচ্চ রক্তচাপ। কেমন সেগুলো? মাথা ঝিম ঝিম করা,মাথা ঘুরে পরে যাওয়া,হঠাৎ বমি হতে পারে সাথে শ্বাস কষ্ট। এসব হল খুব সাধারণ লক্ষণ। এই লক্ষণ গুলো দেখা মাত্রই,ডাক্তারের পরামর্শ নেয়া উচিত।

ডাক্তার এর প্রেসক্রিপশনে রোগ নিরাময়ের চেয়ে,উত্তম যদি আমরা নিজেরা সচেতন হই। আমাদের প্রতিদিনকার জীবনে সামান্য কিছু পরিবর্তনই পারে এই রোগ থেকে প্রতিরোধের উপায় খুঁজে নিতে। প্রতিদিন নিয়ম করে ৪০ মিনিট হাটার অভ্যাস করতে হবে। সাথে তেল,চর্বি এবং কোলেস্ট্রল জাতীয় খাবার এড়িয়ে চলতে হবে। দৈহিক পরিশ্রমকে অনেকে ভাল চোখে না দেখলেও, সুস্বাস্থ্যের জন্য অতি গুরুত্বপূর্ন।

একবার যদি উচ্চ রক্তচাপের কবলে পড়েই যান,তাহলে কোথায় পাবেন এর যথাযথ পরামর্শ? কিংবা কি হতে পারে চিকিৎসা সে কথাও বললেন ডা.রাজ। গ্রামাঞ্চলে থানা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স,কমিউনিটি ক্লিনিক এবং শহরাঞ্চলে যেকোন অনুমোদিত হাসপাতালে উচ্চ রক্তচাপের চিকিৎসা পাওয়া যায়।

গড়ে রক্তচাপ ১৪০/৯০ বা এর ওপরে থাকলে কোন উপসর্গ না থাকলেও ধরে নিতে হবে, আপনি উচ্চ রক্তচাপে ভুগছেন। রক্তচাপ ১৮০/১১০ বা এর ওপরে হলে তা উচ্চ রক্তচাপের বিপজ্জনক পর্যায়, অস্থির না হয়ে এ অবস্থায় কয়েক মিনিট বিশ্রাম নিয়ে আবার রক্তচাপ মাপুন। এরপরও রক্তচাপ বেশি থাকলে দ্রুত চিকিৎসকের সাথে যোগাযোগ করুন।

স্বাস্থ্যবান্ধব জীবনযাত্রার মাধ্যমে রক্তচাপকে মাত্রার ভিতরে রাখা যায়। দরকার আমাদের সবার সচেতনতা সাথে ইচ্ছা।

XS
SM
MD
LG