অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

মিশরে প্রতিবাদ বিক্ষোভ অব্যাহত, বিচারকরা ধর্মঘটে যোগ দিয়েছেন


Mideast Egypt

Mideast Egypt

মিশরের সর্বোচ্চ বিচার বিভাগ মিশরীয় প্রেসিডেন্ট মোহামেদ মুরসীর সম্প্রতি ঘোষিত শাসন সংক্রান্ত আইন গুলিকে বিচার বিভাগের ওপর এক তুলনাবিহীন আক্রমন বলে আখ্যা দিয়েছে। প্রেসিডেন্ট মুরসীর আইনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে আলেক্সান্দ্রিয়া শহরের বিচারকরা ধর্মঘটে নেমেছেন।

বৃহষ্পতিবার প্রেসিডেন্ট মুরসী এক ঘোষনায় বলেন, তাঁর সিদ্ধান্তগুলি বিচার বিভাগের পর্যালোচনা থেকে মুক্ত থাকবে। এই ঘোষনার পর মিশরের প্রধান শহরগুলিতে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে।

কায়রোর তাহরির স্কোয়ারে বিক্ষোভকারীদের জমায়েত শনিবার দিন পর্যন্ত অব্যাহত থাকে। তাদের অনেকেই সেখানে রাত কাটায়। নিরাপত্তা বাহিনী বিক্ষোভকারীদের ছত্রভংগ করতে কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ করে।

কয়েকটি শহরের বিক্ষোভকারীরা শুক্রবার শাসক মুসলিম ব্রাদারহুডের দপ্তর গুলিতে আক্রমন চালায়। কায়রোতে নতুন প্রেসিডেন্টের আইনের পক্ষে ও বিপক্ষে লোকজন পথে নামে। পোর্ট সাইদ, ইসমাইলিয়া ও আলেক্সান্দ্রিয়া শহরে বিক্ষুব্ধ জনতা মুসলিম ব্রাদারহুডের অফিস সমূহ লক্ষ্য ক’রে পাথর ও বিস্ফোরক দ্রব্য নিক্ষেপ করে।

সেসব বিক্ষোভের একদিন আগে মিশরীয় প্রেসিডেন্ট মোহামেদ মুরসী নিজকে সব রকম পর্যালোচনার উর্ধে রাখার ঘোষনা দেন। তিনি জানান, তাঁর কোন সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আদালত বা অন্য কোন কর্তৃপক্ষ আপীল আনতে পারবেনা।

শুক্রবার মিষ্টার মুরসী প্রেসিডেন্ট প্রাসাদে তাঁর সমর্থকদের বলেন, তিনি মিশরকে স্থিতিশীল ও নিরাপদ জাতি হিসেবে এগিয়ে নিতে চান; সেদেশের একমাত্র নিয়ন্ত্রক হবার অভিলাষ তাঁর নেই।

মিশরীয় প্রেসিডেন্টের ঘোষিত আইন অনুযায়ী মিশরের আইন বিভাগ, সংসদের নিম্ন কক্ষ এবং সংবিধান রচনার দায়িত্বপ্রাপ্ত সংসদকে নাকচ করতে পারবেনা। মিষ্টার মুরসীর ইসলামপন্থী রাজনৈতিক মিত্ররা এই দুটি পরিষদ নিয়ন্ত্রন করছেন।

মিষ্টার মুরসী গত বছরে প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট হোসনি মুবারকের বিরুদ্ধে গন অভ্যুত্থানের সময়ে সহিংসতার অভি্যোগে সাজা প্রাপ্ত প্রাক্তন কর্মকর্তাদের পুনর্বিচারের নির্দেশ দিয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্র সরকার তাঁর ঘোষিত আইনের ব্যপারে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে।

XS
SM
MD
LG