অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

মিশরের বিক্ষোভকারিরা আবারও কারফিউ অগ্রাহ করে , মুবারকের পদত্যাগ দাবি করেছে


ঊর্দিপরা নিরাপত্তা বাহিনীর একজনকে জনসাধারণ বহন করে নিয়ে যাচেছ তাহরির চত্বরের দিকে

ঊর্দিপরা নিরাপত্তা বাহিনীর একজনকে জনসাধারণ বহন করে নিয়ে যাচেছ তাহরির চত্বরের দিকে

মিশরে প্রেসিডেন্ট হোসনে মুবারকের তিরিশ বছরের শাসনের অবসান ঘটাতে সরকার আরোপিত কারফিউ অমান্য করে হাজার হাজার বিক্ষোভকারী কায়রোর তাহরির চত্বরে আজ ও তাদের দাবি অব্যাহত রেখেছে।

বিক্ষোভাকারীদের একজন বলছেন যে তারা ৫/৬ দিন ধরে বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছে এবং প্রেসিডেন্ট মুবারক ক্ষমতা ত্যাগ না করা পর্যন্ত তারা সেখান থেকে সরবেন না।

এ দিকে মাথার ওপর দিয়ে হেলিকপ্টার উড়ে যাচ্ছে কিন্তু বিক্ষোভকারীরা মি মুবারকেকে পদত্যাগে বাধ্য করাতে আগামিকাল লক্ষাধিক লোকের সমাবেশ ঘটানোর আহ্বান জানিয়েছে। তারা সাধারণ ধর্মঘটের ও ডাক দিচ্ছে যদিও মিশরের রাজধানীতে এমনিতে এখন সব কিছুই বন্ধ রয়েছে। মিশরের সংবাদমাধ্যম জানাচ্ছে যে প্রেসিডেন্ট মুবারক একজন নতুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এবং অর্থমন্ত্রী নিয়োগ করেছেন , যাকে বিশ্লেষকরা মনে করছেন যে ক্ষুব্ধ প্রতিবাদকারীদের শান্ত করার প্রচেষ্টা । কায়রো থেকে সংবাদদাতারা বলছেন যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী হাবিব আদলির স্থলাভিষিক্ত হলেন কারাগার বিষয়ক সাবেক পরিচালক জেনারেল মাহমুদ ওয়াগদি। গত সপ্তার সংঘাতের পর মিশরের জনগণ হাবিব আদলির পদত্যাগ দাবি করছিলেন । আজ পুলিশ আবার কাজে ফেরত যাচ্ছে তবে তাদের প্রতি নিদেূর্শ রয়েছে বিক্ষোভ দমন না করে রুটিন মাফিক কাজ করার।

হাজার হাজার বিদেশি পর্যটক সে গোলোযোগ এড়ানোর জন্যে সে দেশ ত্যাগ করার লক্ষে বিমান বন্দরগুলোতে সমবেত হয়েছে। বহু দেশই কায়রোতে উদ্বারকারী বিমান পাঠিয়েছে। গত মঙ্গলবার থেকে যে বিক্ষোভ হয়েছে তাতে শতাধিক লোক প্রাণ হারিয়েছে।

এ দিকে চীনা ইন্টারনেটে মিশরের সংবাদ পাওয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা রয়েছে বলে জন সংযোগ বিষয়ক কর্মকর্তা মা তাও তাও জানান :

মিশরের পরিস্থিতি সম্পর্কে টেলিফোনে বিশ্লেষণমূলক মন্তব্য করলেন , ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের অধ্যাপক শহীদুজ্জামান :

XS
SM
MD
LG