অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

পশ্চিমবঙ্গের বন্যা-দুর্গত মানুষের দুর্গতি ক্রমেই স্পষ্ট হয়ে উঠছে


সোমবার বৃষ্টিতে কিছুটা বিরতি হলেও পশ্চিমবঙ্গের বন্যা-দুর্গত মানুষের দুর্গতি ক্রমেই স্পষ্ট হয়ে উঠছে। সবচেয়ে বেশি বিপদগ্রস্ত রাজ্যের চারটি জেলা - বীরভূম, মুর্শিদাবাদ, হুগলি আর হাওড়া। মুখ্যমন্ত্রী, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায সোমবার জানান, সারা রাজ্য থেকে এখনও পর্যন্ত চারটি শিশু-সহ ৫০ জনের বন্যায় মৃত্যুর খবর এসেছে। প্রশাসনিক সূত্রের হিসেব, গোটা রাজ্যে ৪ লক্ষ ৭২ হাজার ৬৪৫ হেক্টর কৃষিজমির ফসল বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত। বিভিন্ন এলাকায় ১,৫৩৭টি ত্রাণ শিবিরে আশ্রয় নিতে বাধ্য হয়েছেন ২ লক্ষ ১৪ হাজার মানুষ। জেলায় জেলায় অন্তত ২ লক্ষ বাড়ি ভেঙে যাওয়ার খবর এসেছে। অতি বৃষ্টির পরে এ বার বিভিন্ন নদী উপচে পড়ছে। তার ওপর নদীগুলির ওপরকার জলাধারগুলি টইটম্বুর হয়ে যাওয়ায় কর্তৃপক্ষ জল ছেড়ে দিতে বাধ্য হচ্ছেন। এ বছর দক্ষিণবঙ্গে কত বেশি বৃষ্টি হয়েছে, তার একটা ধারণা দিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া অফিস। জুন আর জুলাই মাস মিলিয়ে কলকাতায় স্বাভাবিকের ৫৬% বেশি বৃষ্টি পড়েছে। জুলাই মাসে কলকাতায় গড় বৃষ্টি হয় ৪০০ মিলিমিটার। এই জুলাইতে বৃষ্টি পড়েছে ৬৭৪ মিলিমিটার। এর পরেও কি বন্যা আটকানো যায়?শুনুন গৌতম গুপ্তের রিপোর্ট:

XS
SM
MD
LG