অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

হ্যালো ওয়াশিংটন : বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শরনার্থী :প্রভাব ও প্রতিক্রিয়া


আজকের বিষয় বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শরনার্থী প্রভাব ও প্রতিক্রিয়া। আজ আমাদের অতিথী প্যানেলে রয়েছেন Research Initiatives Bangladesh ‘এর নির্বাহী পরিচালক , ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের প্রাক্তন অধ্যাপক ড মেঘনা গুহঠাকুরতা , রয়েছেন বাংলাদেশ ইন্টারপ্রাইজ ইনস্টিটিউট চিন্তক গোষ্ঠির সদস্য বিশিষ্ট নিরাপত্তা বিশ্লেষক অবসর প্রাপ্ত এয়ার কমোডর ইশফাক এলাহী চৌধুরী এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক রূবাইয়াৎ ফেরদৌস

আমরা জানি যে মিয়ানমারের রাখাইন প্রদেশের অধিবাসী এই রোহিঙ্গারা, যারা মূলত মুসলমান , বিতাড়িত হয়ে বাংলাদেশে শরনার্থী হিসেবে আসা শুরু করে। অভিযোগ হচ্ছে যে রোহিঙ্গারা মিয়ানমারে সংখ্যাগরিষ্ঠদের দ্বারা নির্যাতিত হয়েছে এবং সেখানকার সরকার ও রোহিঙ্গাদের নিজেদের নাগরিক বলে মেনে নিচ্ছে না। অন্যদিকে বাংলাদেশ , তার সীমিত সম্পদ এবং বিপুল জনগোষ্ঠির চাপে রোহিঙ্গাদের বাড়তি বোঝা বহন করতে অসুবিধের সম্মুখীন হচ্ছে ।

তবে তার চেয়ে ও বড় কথা রোহিঙ্গাদের মধ্যে কেউ কেউ বাংলাদেশের নিরাপত্তার প্রতি হুমকি হয়ে উঠতে পারে ; এমন কী দেশী বা আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসবাদী গোষ্ঠিগুলো এই সব বিপন্ন মানুষের ধর্মীয় ভাবাবেগকে কাজে লাগিয়ে , তাদের উগ্রবাদী আদর্শের সম্প্রসারণ ঘটাতে পারে বলে আশঙ্কা রয়েছে। আর অতি সাম্প্রতি যে বিষয়টি সকলের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে , সেটি হলো মানবপাচারকারীদের কবলে পড়া লোকজনের বিপন্ন অবস্থা , সাগরভাসী এই সব লোকের অবর্ণনীয় দূর্দশা। এতে বাংলাদেশীরা যেমন রয়েছেন , তেমনি রয়েছেন রোহিঙ্গারাও এবং বলাই বাহুল্য যে রোহিঙ্গাদের দূর্বলতা ও রাষ্ট্রহীনতার সুযোগে মানবাপাচারকারীর সমুদ্র পথে পাচারে প্রথম তৎপর হয়ে ওঠে । পরে বাংলাদেশীরাও তাদের কবলে পড়ে। বিষয়টি যেমন মানবিক , তেমনি বাংলাদেশের নিরাপত্তার প্রতি ঝুকিপুর্ণও । এ সব দিকই আজকের এই কল ইন শোতে আমরা আমাদের অতিথীদের কাছ থেকে জেনে নেবো শ্রোতাদের প্রশ্নের মাধ্যমে।

XS
SM
MD
LG