অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ইরান ভূখন্ডে ড্রোন উড়োজাহাজের পতনের দায় যুক্তরাষ্ট্রকে বহন করতে হবে ।


ইরান ভূখন্ডে ড্রোন উড়োজাহাজের পতনের দায় যুক্তরাষ্ট্রকে বহন করতে হবে ।

ইরান ভূখন্ডে ড্রোন উড়োজাহাজের পতনের দায় যুক্তরাষ্ট্রকে বহন করতে হবে ।

ইরান বলেছে – এমাসের গোড়ার দিকে যুক্তরাষ্ট্রের একটি সন্ধানী গোয়েন্দা বিমান ইরানী ভূখন্ডে ভূপাতিত হবার পরবর্তী পরিণতির দায় যুক্তরাষ্ট্রকেই বহন করতে হবে ।

ওবামা প্রশাসন উড়োজাহাজটি ফিরিয়ে দেওয়ার জন্যে আনুষ্ঠানিকভাবে ইরানকে অনুরোধ করেছে । তবে , ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয়ের মূখপাত্র রামিন মেহমানপরাস্ত মঙ্গলবার বলেছেন , যুক্তরাষ্ট্রের বরং এর জন্যে মাফ চাওয়া উচিত । ইরানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আহমাদ ভাহিদী বড়েছেন ঐ উড়োজাহাজটি এখন ইরানের সম্পত্তি ।

মানুষবিহিন ঐ উড়োজাহাজ , ড্রোনের ঘটনা নিয়ে ইরান জাতিসংঘের কাছে নালিশ করেছে এবং যুক্তরাষ্ট্র আন্তর্জাতিক আইন লংঘন করেছে , এ কথা বলে , তার অভিযোগের কথা মঙ্গলবার আবারো উল্লেখ করেছে ।

প্রেসিডেন্ট ওবামা সোমবার সাংবাদিকদের কাছে এব্যাপারে কোনো মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানিয়ে বলেন – গোয়েন্দা সংশ্লিষ্ট তথ্যাদি , তাঁর কথায় গোপনিয় বিষয় । তবে খবরাখবরে প্রকাশ যে , অত্যাধুনিক স্টেলথ প্রযুক্তি সমৃদ্ধ উড়োজাহাজটি হয় বিপথগামি হয়ে আফগানিস্তান থেকে ইরানের আকাশ সীমায় ঢুকে পড়েছিলো নয়তোবা ইরানের পরমানূ কর্মসূচি সম্পর্কে গোয়েন্দা তত্পরতা চালাচ্ছিলো ।

মি:ওবামা বলেন যুক্তরাষ্ট্র ড্রোন উড়োজাহাজটি ফেরত চেয়েছে এবং ইরান কিভাবে সাড়া দেয় যুক্তরাষ্ট্র তা দেখবে । তবে , পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিনটন বলেছেন – ইরানের অতীত যে আচার-আচরন , তার প্রেক্ষিতে এটা মান্য করা হবে যে আমরা তা প্রত্যাশা করিনা ।

XS
SM
MD
LG