অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

রবিবার যথারিতি প্রতি বছরের মতোই পালিত হবে জাতীয় প্রার্থনার দিন-স্মরণ দিবস এগারো সেপ্টেম্বর


পনেরো বছর আগে, এই সেপ্টেম্বরের একটা দিনও শুরু হয়েছিলো অন্যান্য দিনের মতো করেই- কিন্তু ঐ দিনটাই শেষতক এ দেশের ইতিহাসের মষিমাখা একটা দিনে পর্যবসিত হয়- কথাটা বললেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা এই শনিবার তাঁর সাপ্তাহিক ভাষনে।একদিন পর আগামিকাল রবিবার হবে ঐ সেই দিনটির পঞ্চদশ বর্ষপুর্তির দিন-বিষাদক্লিষ্ট সেই এগারো সেপ্টেম্বর—নিউ ইয়র্ক- পেনসেলভেনিয়ার এক গ্রামাঞ্চল আর পেন্টাগনের নিদারুন সেই দিন।

প্রেসিডেন্ট বললেন-সেপ্টেম্বরের সেই দিনটাতে নির্দোষ-নিরপরাধ ৩ হাজারের মতো প্রাণ হারিয়ে গিয়েছিলো কালের অতল গহ্বরে- হারিয়ে গিয়েছিলো এই এ্যামেরিকার- বিশ্বের অন্যান্য অংশের সকল ধর্ম-বর্ণ-গোত্র, সকল শ্রেনী সম্প্রদায়ের ঐ মানুষগুলো।

ওবামা বললেন- সেদিন আর আজকের এ দিন, মাঝখানের পনেরোটা বছরে বদলেছে অনেক কিছুই- এক যেটা কিনা বদলায়নি একেবারেই তা হ’লো আমাদেরকে, এ্যামেরিকানদেরকে যে নিক্তিতে মূল্যায়ন করা হয়ে থাকে সারবত্তার সেই মূল্যবোধের তোলায় কোনো রদবদল হয়নি এতোটুকুও।আমাদের অস্তিত্ব-আমাদের অবয়ব, আমাদের যে স্থিতিস্থাপকতা – সেটাকে – এই যুক্তরাষ্ট্রকে সন্ত্রাসীরা পরাভূত করতে পারবেনা কখোনোই ।

আগামীকাল রবিবার যথারিতি প্রতি বছরের মতোই পালিত হবে জাতীয় প্রার্থনার দিন-স্মরণ দিবস- হোয়াইট হাউসে পালিত হবে প্রেসিডেন্টের মুহুর্তকালের মৌনতার ক্ষণ। সেদিন যাঁরা প্রাণ হারান সেই তাঁদের স্মরণে কথা বলবেন প্রেসিডেন্ট প্রতিরক্ষা দফতর পেন্টাগনের সমাবেশে।

পেনসেলভেনিয়ার পশ্চিমাঞ্চলবর্তী শ্যাঙ্কসভিলের অদূরে পনেরো বছর আগের সেদিন বিমান উড়ান তিরানব্বুইয়ের নিহত যাত্রি-বিমান কর্মি সবার স্মরনে আজ দাঁড়িয়ে আছে স্মৃতি- স্মারক । দাঁড়িয়ে রয়েছে এগারো সেপ্টেম্বর মিউযিয়াম- নিউ ইয়র্কে যেখানে একদিন মাথা তুলে দাঁড়িয়েছিলো ওয়ার্ল্ড ট্রেইড সেন্টার।প্রতিরক্ষা দফতর পেন্টাগনে রচিত হয়েছে স্মৃতি স্মারক ওখানকার নিহত ১ শ’ ৮৪ জনের স্মরনে।


XS
SM
MD
LG