অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বিন লাদেন নিহত হওয়ায় বিশ্ব এখন আরো বেশি নিরাপদ


কান্দাহারে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান ঘাটিতে সৈন্যরা প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার ভাষণ শুনছে

কান্দাহারে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান ঘাটিতে সৈন্যরা প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার ভাষণ শুনছে

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা বলছেন আল ক্বায়দা নেতা ওসামা বিন লাদেনের মৃত্যুর কারণে এখন বিশ্ব আরো নিরাপদ হয়েছে। আজ হোয়াইট হাউজে মি ওবামা বলেন এটা হচ্ছে আমেরিকার জন্যে এক শুভ দিন এবং যুক্তরাষ্ট্র সুবিচারের জন্যে তার প্রতিশ্রুতি পুরণ করেছে।

কর্মকর্তাদের উদ্ধৃত করে বলা হয়েছে যে ডিএনএ পরীক্ষায় ৯৯.৯ % মিল পাওয়া গেছে বিন লাদেনের সঙ্গে এবং এটা নিশ্চিত যে এই লোক নিহত।

এর আগে প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা রোববার রাতে ঘোষণা করেছেন যে বিশ্বে যে সন্ত্রাসীর সন্ধান অভিযান চলছিল সব চেয়ে বেশি , সেই আল ক্বায়দা নেতা ওসামা বিন লাদেনকে পাকিস্তানের অভ্যন্তরে যুক্তরাষ্ট্রের বাহিনী হত্যা করেছে। রোববার রাতে সরাসরি জাতির উদ্দেশ্যে হোয়াইট হাউজ থেকে দেওয়া এক ভাষণে মি ওবামা জানান যে আমেরিকানদের একটি ক্ষুদ্রদল ইসলামাবাদের উত্তরে একটি অবস্থা সম্পন্ন এলাকা অ্যাবটাবাদে লক্ষ্য স্থির করেই

তিনি দ্বর্থহীন কন্ঠে আমেরিকান জনগণকে জানান যে আল ক্বায়দার নেতা ওসামা বিন লাদেন যিনি হাজার হাজার নিরীহ নারী পুরুষ ও শিশুর হত্যার জন্যে তাকে যুক্তরাষ্ট্র এক অভিযানে হত্যা করেছে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা কর্মকর্তারা বলছেন উত্তরের আরব সাগরের , যুক্তরাস্ট্রের বিমান বাহী জাহাজের ডেক থেকে তার মরদেহ সমুদ্রের বুকে ভাসিয়ে দেওয়া হয়। তারা বলছেন যে মরদেহের প্রতি ইসলামি রীতি রেওয়াজ অনুযায়ী আচরণ করা হয়েছে।

মি ওবামা এই ঘটনাকে আল ক্বায়দাকে পরাস্ত করার ক্ষেত্রে সব চেয়ে তাৎপর্যপূর্ণ সাফল্য বলে বর্ণনা করেছেন। বিন লাদেনের এই নিহত হওয়াকে , শান্তি ও মানবিক মর্যাদায় বিশ্বাসী মানুষ মাত্রেরই স্বাগত জানানো বলে তিনি মনে করেন। তিনি বলেন সুবিচার করা হয়েছে।

একটি অবহিতকরণ সভায় ওবামা প্রশাসন এই অভিযানকে জটিল ও বিজ্জনক মিশন বলে বর্ণনা করেন। একজন কর্মকর্তা বলছেন যে বিন লাদেনের অবস্থান সম্পর্কে এই গোপন সংবাদটি যুক্তরাষ্ট্র কাউকেই জানায়নি এবং যুক্তরাষ্ট্র সরকারের খুব কম লোকই এ ব্যাপারে অবহিত ছিলেন।

২০০১ সালের ১১ই সেপ্টেম্বর আল ক্বায়দা সদস্যরা যুক্তরাষ্ট্রে ভয়াবহ অক্রমণ চালানোর প্রায় দশ বছর পর এই শীর্ষ সন্ত্রাসীকে হত্যা করা হলো। এতে প্রায় ৩০০০ লোক নিহত হন।

মি ওবামা বলেন বিন লাদেন কোন মুসলমান নেতা ছিলেন না , ছিলেন মুসলমানদের গণহতাকারী। প্রেসিডেন্ট বলেন যে পাকিস্তানি গোয়েন্দাদের সাহায্যে বিন লাদেনের অবস্থানের নির্দিষ্ট স্থানটি চিহ্নিত করা হয় এবং কয়েক মাসের গোয়েন্দা সুত্রের পরিপ্রেক্ষিতে তিনি এই অভিযান অনুমোদন

ওবামা প্রশাসন বলছে যে ওসামা বিন লাদেনকে রাত্রিকালীন অভিযানে হত্যা করা হয় ।

প্রশাসনের একজন কর্ম কর্তা বলেছেন যে আমরিকান বাহিনীর একটি ছোট দল অ্যাবটাবাদে তার আবাসস্থলের প্রাঙ্গনে নেমে আসে।

কর্মকর্তারা বলছেন যে ব্যতিক্রমধর্মী ঐ বাড়ির আঙ্গিনায় দুটি নিরাপত্তা ফটক রয়েছে , তিন থেকে পাচ মিটানর উচু দেওয়ারে ওপর কাটাতারের বেড়া রয়েছে , তিন তলার ছাদে ২ মিটার উচু দেওয়াল রয়েছে।

কর্মকর্তাটি বলেছেনন যে ঐ বাড়িটি অন্যান্য বাড়ির তুলনায় আটগুল বড় । এতে কোন ফোন বা ইন্টারনেট ছিল না এবং এর আনুমানিক দাম দশ লক্ষ ডলার ।

যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তরা বলেন যে বিন লাদের এই আক্রমণ প্রতিহত করার চেষ্টা করেন তবে বন্দুক যুদ্ধে তা এক ছেলে এবং দু জন সহযোগি সহ নিহত হন। মানব ঢাল হিসেবে ব্যবহৃত একজন নারী ও নিহত হন এবং আরও দুজন আহত হন।

XS
SM
MD
LG