অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

সৌদি আরবের মহিলা জুডো ক্রীড়াবীদ মস্তকাভরন বা মাথায় হিজাব বেঁধেই প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারবেন বলে লন্ডনে অলিম্পিক কর্মকর্তারা একটা সহমতে উপনীত হয়েছেন ।
আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি বলছে – ঊদজান শাহের কানি হিজাব পরতে পারবেন । আন্তর্জাতিক জুডো ফেডারেশান বলেছিলো- এ ক্রীড়ানৈপূন্য প্রদর্শনে পেছন থেকে জোরসে গলদেশ চেপে ধরা ও আগ্রাসি কায়দায় জাপ্টে চেপে ধরার তরিকা শামিল রয়েছে বিধায় হিজাব বিপজ্জনক প্রতিপন্ন হতে পারে । অলিম্পিক নিয়ে রোকেয়া হায়দার বললেন -এবার লণ্ডন অলিম্পিক সমাচার। আপনারা জানেন রমজান মাসে এগিয়ে চলেছে বিশ্বের সেরা এই ক্রীড়া প্রতিযোগিতা। বাংলাদেশসহ, বিভিন্ন দেশের হাজার হাজার মুসলিম খেলোয়াড় এতে অংশ নিচ্ছেন। সেইসঙ্গে আজকের খবরে দেখা যাচ্ছে যে, সৌদি আরবের এক মহিলা জুডো প্রতিযোগী তার প্রথা অনুযায়ী ‘হিজাব’ পরেই খেলায় অংশ নিতে পারবেন। অলিম্পিক কমিটি সেই অনুমতি দিয়েছে।
এইসব বিষয় নিয়ে আজকের আলোচনা।
আমাদের স্টুডিও থেকে রোকেয়া হায়দার কথা বলেছেন বাংলাদেশ অলিম্পিক কমিটির কর্মকর্তা কর্ণেল ওয়ালিউল্লার সঙ্গে। আসুন শোনা যাক

কর্ণেল ওয়ালিউল্লা মনে করেন, বাংলাদেশ দল বিভিন্ন আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় আগের চাইতে ভাল ফলাফল করছে এবং বিশ্বের সেরা প্রতিযোগিতা অলিম্পিকের জন্য যে দীর্ঘ সময়ের প্রশিক্ষণ-অনুশীলনের প্রয়োজন, আগামীতে তারা সেই সুযোগ পাবেন। তিনি বলেন, ‘আমরা গত একবছর খেলোয়াড়দের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করেছি। এই এক বছরের মধ্যে আমরা বিদেশী প্রশিক্ষকও রেখেছিলাম। এবং এদেরকে বিদেশে কম্পিটিশানের সুযোগ করে দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু কথা হচ্ছে যে, অলিম্পিকের প্রস্তুতির জন্য, এটা সারা বিশ্বের শ্রেষ্ঠতম খেলা, এর জন্য এক অলিম্পিক থেকে শুরু করে পরবর্তী অলিম্পিককে টার্গেট করতে হয়। বস্তুত কমপক্ষে দশ-পনেরো বছর টার্গেট করতে হয়’।
XS
SM
MD
LG