অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

সমন্বয়ের অভাবে ২০১০ সালের ফোবানা উৎসব ব্যাহত

  • আনিস আহমেদ

ফোবানা ২০১০

ফোবানা ২০১০

২০১০ সালের ফোবানার মহাসম্মেলনের শেষ দিনটি ছিল সঙ্গীতমুখর, সেখানে বেশ কিছু সেমিনার এবং আলোচনারও আয়োজন করা হয়েছিল। অন্যান্য দিনের মতো ফোবানার এই তৃতীয় দিনেও যথারীতি বাংলাদেশের তৈরি পোশাক বিশেষত শাড়ি ও শালোয়ার কামিজের অনেকগুলো স্টলে ক্রেতাদের জমজমাট ভীড় লক্ষ্য করা যায়। সঙ্গীত পরিবেশন করেন ভারতের বিশিষ্ট সঙ্গীত শিল্পি পন্ডিত অজয় চক্রবর্তী। তৃতীয় দিনের ফোবানায় অন্যান্য শিল্পিদের মধ্যে আরও ছিলেন কাদেরি কিবরিয়া, রথীন্দ্রনাথ রায়, বেবি নাজনীন প্রমুখ।

ফোবানা ২০১০

ফোবানা ২০১০

ফোবানায় রবিবার কয়েকটি বিষয়ে সেমিনার ও আলোচনা অনু্ষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ ও যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বিষয়ে একটি আলোচনা চক্রে অংশ নেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক মুনতাসির মামুন, বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক কামাল লোহানী, কানাডা থেকে আগত লেখক হাসান মাহমুদ প্রমুখ। বাংলার ইতিহাস সম্পর্কে তথ্য সমৃদ্ধ একটি বক্তব্য রাখেন ম্যারিল্যান্ড থেকে আগত ডঃ আব্দুল মান্নান। তা ছাড়া বিজনেস সেমিনার এবং বিনিয়োগের উপরও সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। এতে বক্তব্য রাখেন এন আর বি ইউ এস এ'র পরিচালক তারিক বাবু।

এবারের ফোবানা বিপুল সম্ভাবনা এবং প্রচুর গুণী লোকের সমাবেশ সত্বেও পরিকল্পনা বাস্তবায়নের অভাবে অনেকখানি বিপর্যস্ত হয়। অনুষ্ঠানসূচির অভাব এবং সমন্বয়ের অভাব ফোবানা ২০১০ সালের মহাসম্মেলনের গুরুত্বকে অনেকখানি খর্ব করেছে।

XS
SM
MD
LG