অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

রিজার্ভের চুরি যাওয়া অর্থ বাংলাদেশে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া শুরু


রিজার্ভের চুরি যাওয়া অর্থ ফিলিপাইন থেকে বাংলাদেশে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া শুরু করেছেন ওই দেশের আদালত। তবে বৃহস্পতিবার ফিলিপাইনের অনলাইন পত্রিকা ইনকোয়ারারের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এ অর্থ ফেরত পেতে বাংলাদেশকে একটু বেশি সময় অপেক্ষা করতে হবে। ওই অর্থ ক্যাসিনো ব্যবসায়ী কিম ওয়ংয়ের কাছ থেকে ফিলিপাইনের অ্যান্টি মানি লন্ডারিং কাউন্সিলে জমা হয়েছে এবং কিছু ধাপ পার করার পর ওই অর্থ ফেরত পাওয়া যাবে। চুরি যাওয়া অর্থের যে অংশ পুনরুদ্ধার করা হয়েছে, ফিলিপাইনের আদালত তা যথাযথভাবে সংরক্ষণ করতে নির্দেশ দিয়েছেন।

গত ৪ঠা ফেব্রুয়ারি রাতে বাংলাদেশ ব্যাংকের ১০ কোটি ১০ লাখ ডলার চুরি করা হয়। এর মধ্যে দুই কোটি ডলার যায় শ্রীলঙ্কায় আর বাকি ৮ কোটি ১০ লাখ ডলার গেছে ফিলিপাইনে। এরই মধ্যে শ্রীলঙ্কার দুই কোটি ডলার ফেরত পেয়েছে বাংলাদেশ।

এদিকে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত সাংবাদিকদের বলেছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের চুরি যাওয়া টাকার বিষয়ে পূর্ণ তদন্ত প্রতিবেদন পেতে ২ মাস সময় লাগবে এবং তারপর এটা নীয়ে কথা বলা যাবে।

XS
SM
MD
LG