অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

আমেরিকা কনেটিকাটের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নারকীয় ঘটনায় শোকে মুহ্যমান


যুক্তরাষ্ট্র কর্তৃপক্ষ কনেটিকাট রাজ্যের নিউটাউন শহরের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নারকীয় গুলিবর্ষনের জন্য দায়ী বলে সন্দেহভাজন ব্যক্তিটির সেই অপরাধের পেছনে কী মানসিকতা কাজ করেছে, তা এখনো উদঘাটন করতে পারেনি। গতকালের সেই ঘটনায় ২০ টি শিশু এবং ছয় জন প্রাপ্ত বয়ষ্ক লোক প্রান হারায়।

শুক্রবার রাতে শত শত শোকার্ত লোক নিউটাউনের এক গির্জায় শোক প্রার্থনায় মিলিত হয়। এদিকে সারা আমেরিকা এই বিয়োগান্তক ঘটনায় এখনো শোকে মুহ্যমান হয়ে আছে। কনেটিকাটের গভর্নর শহরের শোক সন্তপ্ত বাসিন্দাদের উদ্দেশ্য ক’রে বলেন, “আজ এখানে অশুভ শক্তির পদার্পন ঘটেছিলো”।

প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা শনিবার তাঁর সাপ্তাহিক বেতার ভাষনে বলেন, “আমেরিকার প্রতিটি বাবা মার হৃদয় এখন দুঃখ ভারাক্রান্ত। আমরা কিছু শিক্ষক শিক্ষিকাকেও হারিয়েছি যারা শিশুদের স্বপ্ন বাস্তবায়নের লক্ষ্যে নিজেদের জীবন উতসর্গ করেছেন”

তিনি ভবিষ্যতে এধরনের বিয়োগান্তক ঘটনা এড়াতে কার্যকর পদক্ষেপ নেবার আহবান জানান।

মিষ্টার ওবামা এর আগে শুক্রবার অশ্রুসজল নয়নে তাঁর ভাষনে বলেন, “এ সব মৃত্যু আমাদের হৃদয় ভেঙ্গে দিয়েছে”।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, সৈন্যদের কালো পোশাক পরিহিত বন্দুকধারী শুক্রবার সকালের দিকে স্কুলে প্রবেশের পর দু’টি কক্ষে শিশু এবং তাঁদের শিক্ষক শিক্ষিকাদের লক্ষ্য ক’রে গুলি বর্ষন শুর করে। মৃতদের মধ্যে সেই স্কুলের প্রধান শিক্ষিকাও রয়েছেন।

কর্তৃপক্ষ বলে, এডাম ল্যানযা নামের গুলি বর্ষনকারী নিজের গুলিতেই মারা গেছে। দু”টি আধা স্বয়ংক্রিয় পিস্তল তার কাছে পাওয়া যায়। পরে বন্দুকধারীর গাড়িতে সেনাবাহিনীর ব্যবহারযোগ্য রাইফেলের সন্ধান পাওয়া যায়। কর্তৃপক্ষ আরো জানায়, বন্দুকধারী তার বাসগৃহে নিজের মাকে হত্যা করার পর স্কুলে গুলিবর্ষন শুরু করে।

XS
SM
MD
LG