অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

অভিশংশন বিচারে দাঙ্গা প্ররোচনায় ডনাল্ড ট্রাম্পকে সরাসরি দায়ী প্রমানের চেষ্টা


অভিশংশন বিচারে দাঙ্গা প্ররোচনায় ডনাল্ড ট্রাম্প সরাসরি দায়ী প্রমানের চেষ্টা

সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের অভিশংশন বিচারের দ্বিতীয় দিনে অভিশংসন পরিচালকেরা ৬ই জানুয়ারীর দাঙ্গার নানা ধরনের ফুটেজ প্রদর্শন করেন। সেদিনের দাঙ্গার অগ্রদর্শিত অনেক ফুটেজ প্রদর্শন করা হয় বুধবার সেনেটে। তারা প্রমান করার চেষ্টা করেন সেই দাঙ্গা প্ররোচনার জন্যে ডনাল্ড ট্রাম্প সরাসরি দায়ী।

সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের অভিশংশন বিচারের দ্বিতীয় দিনে অভিশংসন পরিচালকেরা ৬ই জানুয়ারীর দাঙ্গার নানা ধরনের ফুটেজ প্রদর্শন করেন। সেদিনের দাঙ্গার অগ্রদর্শিত অনেক ফুটেজ প্রদর্শন করা হয় বুধবার সেনেটে। তারা প্রমান করার চেষ্টা করেন সেই দাঙ্গা প্ররোচনার জন্যে ডনাল্ড ট্রাম্প সরাসরি দায়ী।

গত নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগ এবং ইলেক্টোরাল কলেজের ভোট যেনো জো বাইডেনের পক্ষে না যায় সেই বিষয়ে সমর্থকদেরকে প্রতিবাদি হবার জন্যে তিনি সমর্থকদের উস্কে দেন বলে অভিযোগ তোলা হয়।

৬ই জানুয়ারীর দাঙ্গার সময় তখনকার ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং সেনেটররা ঘটনাস্থলের খুব কাছেই ছিলেন। পুলিশ দাঙ্গাকারীদের ছত্রভঙ্গ করার নানা চেষ্টা চালায়। সে সময় তাদের হাতে অনেক পুলিশ মার খান।

৬ই জানুয়ারীর দাঙ্গায় তারা ক্যাপিটল হিলে যেভাবে হামলা করে তার ষ্পষ্ট ছিত্র তুলে ধরা হয়ে অভিশংসন বিচারে। এ্যতোদিন পর্যন্ত যেসব ফুটেজ প্রকাশ পায়নি সে রকম অনেক চিত্র তুলে ধরেন অভিশংসন ম্যানেজাররা।

অভিশংসন ম্যানেজার জেমি রাসকিন বলেন, “আমরা প্রমান করবো যে অভিশংসিত প্রেসিডেন্ট নির্দোষ নন। তিনি যে সেই হামলা উস্কে দিয়েছিলেন সেটি প্রমান করা হবে”।

অভিশংসন ম্যানেজাররা প্রমান করার চেষ্টা করছেন যে ডনাল্ড ট্রাম্প ট্রাম্পের কথায় দাঙ্গাকারীরা প্ররোচিত হন। নির্বাচনের কারচুপির অভিযোগ এব ইলেক্টোরাল ভোটের ফলাফল আটকাতে তিনি সেদিনের সমাবেশ থেকে ষ্টপ দা স্টিল বলে তাদেরকে উস্কে দেন।

ডেমোক্রেট এরিক সলওয়েল বলেন, “এটি একটি তাত্ক্ষনিক বক্তব্য নয়। তিনি তার সমর্থকদের নানাভাবে বার্তা দিয়ে বহুদিন ধরে প্ররোচিত করে আসছিলেন। তারা বিশ্বাস করেছে যে তাদের ভোট চুরি করা হয়েছে এবং তারা ভোটের সত্যায়ন বন্ধে তাই যা করা দরকার তাই করতে প্রস্তুত হয়েছে”

দাঙ্গার কয়েক সপ্তাহ আগে ট্রাম্পের ইলেক্টোরাল ফলাফল বাতিলের আবেদন আতদালতে বাতিল হয়, সে বিষযটিও উল্লেখ করেন অভিশংসন ম্যানেজাররা।

ম্যাডেলিন ডিন বলেন, “শুধুমাত্র একটি আদালতে নয়; একজন বিচারকের তরফেও ইলেকশনের ফলাফল ঠিক নয় বলে রায় আসেনি বা তা পূনর্ববেচনা করা হবে বলেন নি”।

তারা প্রমান তুলে ধরেন যে সাএব প্রেসিযেন্ট তার সমর্থকদেরকে জো বাইডেনের বিজয় সত্যায়ন করার গনতান্ত্রিক পথকে আটকে দেয়ার জন্যে প্ররোচিত করেন।

ডেমোক্রেট স্টেসি প্লাস্কেট, “মেক নো মিসটেক- ভুল করবেন না- প্রেসিডেন্ট সেই সংঘাতের বিষয়ে অনুমান করেছেন তা নয়; তিনি প্রত্যক্ষ মদত দিয়েছেন, তাদেরকে উৎসাহিত করেছেন”।

শুক্রবার ট্রাম্পের আইনজীবিরা তার পক্ষে যুক্তি তুলে ধরার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। ইতিমধ্যে তারা বলেছেন ট্রাম্প তার মুক্ত মত প্রকাশের স্বাধীনতা হিসাবে সেদিন তার মতো করে বক্তব্য রেখেছিলেন। তার জন্য তাকে সংঘাত উস্কে দেয়ার জন্য অভিযুক্ত ককরা যায় না।

যদিও সমালোচকরা বলছেন ট্রাম্পের আইনজীবারা হিমশিম খাচ্ছেন তার পক্ষে যুক্তি দাড় করাতে। তবুও ট্রাম্প যে এই বিচারে অভিযুক্ত হবেন এমন সম্ভাবনাও কম। কারন তাকে অভিযুক্ত করতে হলে ৫০ জন ডেমোক্রেট এবং ১৭ জন রিপাবলিকান সেনেটরের সমর্থন লাগবে।

ব্রুকিংস ইনস্টিটিউটের বিশষ্লেষক জন হাডাকের মতে “তারা নিজেরাই নিজের জালে পড়েছেন। রিপাবলিকানরা দেখছেন ট্রাম্প সমর্থকরা আগামীতে তাদের সেনেট নির্বাচন বা অন্য নির্বাচনে বড় একটি শক্তি। সেজন্যে অভিশংসন ম্যানেজাররা যতো যুক্তিই দেখান না কেনো বড় সংখ্যক রিপাবলিকান সেনেটর প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের বিপক্ষে যাবেন বলে মনে হয়না”

অভিশংসন বিচারে যুক্তি উপস্থাপনের মাধ্যমে ডনাল্ড ট্রাম্পকে দোষী সাব্যস্ত করে পরবর্তীতে তাকে ফেডারেল পদে নির্বাচনের অযোগ্য করতে ডেমোক্রেট অভিশংসন ম্যানেজারদের হাতে আরো ৮ ঘন্টা সময় আছে। এরপর ট্রাম্পের আইনজীবিরা তাদের যুক্তি প্রমান উপস্থাপন করে রবিবার নাগাদ বিচার কাজ শেষ হবে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা।

XS
SM
MD
LG