অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ভারতের কৃষকরা ২৭শে সেপ্টেম্বর সারা দেশে সাধারণ ধর্মঘট ডেকেছে 


নতুন কৃষি আইনের বিরুদ্ধে ভারতের কৃষকরা দিল্লি-উত্তর প্রদেশ রাজ্য সীমান্তে প্রধান মহাসড়ক অবরোধ করে স্লোগান দিচ্ছে। ৫ ডিসেম্বর ২০২০।

ভারতের চল্লিশটিরও বেশি কৃষক সংগঠন নিয়ে গঠিত সংযুক্ত কিসান মোর্চা কেন্দ্রের কৃষি আইন প্রত্যাহারের দাবিতে আগামী ২৭শে সেপ্টেম্বর ভারত বনধের ডাক দিয়েছে। সেদিন সকাল ৬টা থেকে বিকেল চারটে পর্যন্ত সারা ভারতে সাধারণ ধর্মঘট পালিত হবে বলে কিসান মোর্চা জানিয়েছে।

কেন্দ্রীয় সরকার যে তিনটি কৃষি আইন প্রবর্তন করেছে, সেগুলোতে কর্পোরেট সংস্থাগুলোর লাভ হবে, কিন্তু কৃষকদের চরম ক্ষতি করবে, এই বলে কৃষকেরা ভারতজুড়ে আন্দোলন করছেন। ২৭শে সেপ্টেম্বর তাঁদের আন্দোলনের দশ মাস পূর্ণ হবে। কেন্দ্র বিতর্কিত কৃষি আইনগুলো তুলে না নেওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার অঙ্গীকার করেছেন কৃষকেরা।

গতকালই কিসান মোর্চার নেতা রাকেশ টিকায়ত যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনকে অনুরোধ জানিয়েছিলেন, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে তাঁর আলোচনার সময় তিনি যেন কৃষক আন্দোলনের প্রসঙ্গ তোলেন। টিকায়ত বলেন, আন্দোলন শুরু হওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত সাত শ’ কৃষকের মৃত্যু হয়েছে। তবু তাঁরা মরণপণ লড়াই করে যাচ্ছেন।

এই আন্দোলনের পুরোভাগে যদিও রয়েছেন হরিয়ানা ও পাঞ্জাবের কৃষকেরা, তবে সারা ভারতেই তাঁদের আন্দোলনের প্রতি সহানুভূতি রয়েছে। মোর্চা জানিয়েছে, ওইদিন হরিয়ানা থেকে দিল্লি সব রাস্তা অবরোধ করা হবে। প্রতিটি সরকারি ও বেসরকারি অফিস বন্ধ থাকবে। ব্যাংক, শিক্ষা ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠান, দোকানপাট, কল-কারখানা ও বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ রাখার জন্য মোর্চা আবেদন জানিয়েছে। সেইসঙ্গে ওই দিন কোনও রকম অনুষ্ঠান যাতে না করা হয়, তার জন্যও অনুরোধ জানিয়েছে তারা। বিভিন্ন ব্যাংকের ইউনিয়নসহ অনেক সংস্থার ইউনিয়নই ঘোষণা করেছে, তারা ধর্মঘটে অংশ নেবে। বেশ কিছু রাজনৈতিক দলের নেতারাও প্রস্তাবিত ধর্মঘটে সমর্থন জানিয়েছেন।

XS
SM
MD
LG