অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ত্রিপুরার নির্বাচনে জয়ের পর উচ্ছ্বসিত ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী


দেশের উত্তর পূর্বাঞ্চলের রাজ্য ত্রিপুরার বিধান সভা নির্বাচনে বিশাল ব্যবধানে জয়ের পর উচ্ছ্বসিত ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আজ এক ট্যুইট বার্তায় তাঁর প্রতিক্রিয়ায় প্রধানমন্ত্রী বুঝিয়ে দিলেন এই জয় তাঁর কাছে কতটা গুরুত্বপূর্ণ। তিনি লিখেছেন ত্রিপুরার মানুষ জনাদেশ দিয়েছেন। বিজেপির 'অ্যাক্ট ইস্ট' নীতিকে সমর্থন করার জন্য ধন্যবাদ জানাচ্ছি। মানুষের স্বপ্নপূরণের জন্য বদ্ধপরিকর আমরা। ত্রিপুরার বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির জয়কে যুগান্তকারী আখ্যা দিয়ে এদিন নরেন্দ্র মোদী বলেছেন অসাধারণ কাজ করেছেন ত্রিপুরার ভাই-বোনেরা। তাঁদের সমর্থনের জন্য ধন্যবাদ জানানোর কোনও ভাষা নেই। ত্রিপুরার পরিবর্তনে চেষ্টার কোনো খামতি রাখব না।

শুধু ইভিএম নয়, এটা বামেদের সঙ্গে আদর্শের লড়াই ছিল বলেও মনে করিয়ে দিয়েছেন নরেন্দ্র মোদী। তাঁর মতে, এটা অত্যাচারী শক্তির বিরুদ্ধে গণতন্ত্রের জয়। আজ থেকে শান্তি ও অহিংসা প্রতিষ্ঠিত হল ত্রিপুরায়। উল্লেখ করা যেতে পারে বর্তমানে দেশের ঊনিশটি রাজ্যে ক্ষমতায় রয়েছে বিজেপি ও এনডিএ জোট। এবার উত্তর-পূর্বের রাজ্যেও জায়গা করে নিল তারা। টুইটারে প্রধানমন্ত্রী লিখেছেন, একের পর এক নির্বাচনে এনডিএ সরকারের উপরে ভরসা রাখছেন ভারতবাসী। ইতিবাচক কাজ ও উন্নয়ন চাইছেন তাঁরা। নেতিবাচক, ধ্বংসাত্মক রাজনীতিকে সম্মান করেন না মানুষ বলেও ট্যুইটে মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী ।

এদিকে আজকে ত্রিপুরার নির্বাচনের ফলাফল ঘোষনার পর বিজেপির সাফল্য নিয়ে রাজনৈতিক সংবাদ বিশ্লেষক সুমন ভট্টাচার্য এক প্রতিক্রিয়ায় বললেন। সেই সংগে বলা যায় আজকে ত্রিপুরার বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল ঘোষনায় যা উঠে এল- তাহচ্ছে ত্রিপুরার মোট ষাট টি বিধান সভার মধ্যে মোট ঊনষাট টি আসনে নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছিল, সেই ঊনষাটটি আসনের মধ্যে বিজেপির দখলে গেল তেতাল্লিশটি আসন, সিপিএম ষোলোটি আসন তাদের দখলে রেখেছে এবং কংগ্রেস শূন্য এবং অন্যান্য দলের দিকেও সেই শূন্য আসনই।

XS
SM
MD
LG