অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ভাসানচর থেকে রোহিঙ্গাদের মূল ক্যাম্পে নিয়ে আসা প্রয়োজন: জাতিসংঘ মহাসচিব


ঝড়-জলোচ্ছ্বাসের শংকাপ্রবণ বাংলাদেশের দূরবর্তী দ্বীপ ভাসানচরে সাগর থেকে উদ্ধার করা যে কয়েকশো রোহিঙ্গা শরণার্থীকে রাখা হয়েছে, তাদের অবিলম্বে মূল রোহিঙ্গা ক্যাম্পে এনে আশ্রয় দেয়ার জন্য বাংলাদেশের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস। আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমগুলোর খবর অনুযায়ী, জাতিসংঘ মহাসচিব বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আব্দুল মোমেনকে সদ্য প্রেরিত এক চিঠিতে এই অনুরোধ জানিয়েছেন। জাতিসংঘ মহাসচিব তার চিঠিতে বলেন, করোনার কারণে প্রয়োজনীয় কোয়ারেনন্টিনে রাখার পরে তাদের শরণার্থীর মর্যাদায়, মানবিক পরিস্থিতির বিবেচনায় ঝড়-জলোচ্ছ্বাস প্রবণ দ্বীপ থেকে সরিয়ে মূল ক্যাম্পে নিয়ে আসা প্রয়োজন।

তবে ঢাকায় পররাষ্ট্র দপ্তরের কেউই ঐ চিঠি প্রাপ্তিসহ এ সম্পর্কে কোন মন্তব্য করতে চাননি। অবশ্য এ সপ্তাহেই বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সংবাদ মাধ্যমকে বলেছেন, রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেয়া শুধুমাত্র বাংলাদেশের একার দায়িত্ব নয়। অন্যান্য দেশগুলোকেও রোহিঙ্গাদের দায়-দায়িত্ব নেয়া উচিত এবং আশ্রয় দেয়া উচিত।

মালয়েশিয়ায় প্রবেশ করতে না পেরে কয়েকশো রোহিঙ্গা সাগরে ভাসমান ছিলেন এপ্রিলের কয়েক সপ্তাহ ধরে। বিভিন্ন দেশ এবং আন্তর্জাতিক সংস্থার অনুরোধে জাতিসংঘের তথ্য মোতাবেক ৩০৮ জন রোহিঙ্গাকে এ মাসের প্রথম সপ্তাহে উদ্ধার করে বাংলাদেশের ভাসানচরে আশ্রয় দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ লক্ষাধিক রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসনের জন্য ভাসানচরের অবকাঠামোর উন্নয়ন করেছে। জাতিসংঘসহ বিভিন্ন দেশ ও সংস্থার চাপে বাংলাদেশ এ পর্যন্ত ঐ পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে পারেনি। তবে প্রথমবারের মতো ৩০৮ জন রোহিঙ্গাকে রাখার মাধ্যমে ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেয়া শুরু করেছে বাংলাদেশ।

XS
SM
MD
LG