অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বাংলাদেশ সরকার এবং চীন পাইপ লাইন ব্যুরোর মধ্যে বৃহস্পতিবার  একটি চুক্তি সাক্ষরিত হয়েছে


Map showing Dhaka and Cox's Bazar, Bangladesh

জ্বালানি তেল আমদানি সহজতর এবং সাশ্রয়ী করারা লক্ষ্যে চট্টগ্রাম বন্দরে একটি তেল খালাস স্থাপনা নির্মাণ এবং গভীর সমুদ্র থেকে ২২০ কিলমিটার দীর্ঘ দুইটি লাইন স্থাপন করেবে চিনের একটি কোম্পানি। এ বিষয়ে বাংলাদেশ সরকার এবং চীন পাইপ লাইন ব্যুরোর মধ্যে বৃহস্পতিবার একটি চুক্তি সাক্ষরিত হয়েছে ।

চট্টগ্রাম বন্দরের কর্ণফুলী নদীর নাব্যতা হ্রাস পাওয়ায়বাংলাদেশের জন্য আমদানি করা পরিশোধিত এবং ক্রুড তেলবাহী বিশাল আকারের অয়েল ট্যাংকারগুলোকে গভীর সমুদ্রে নঙ্গর করতে হয়। কর্মকর্তারা জানিয়েছেন পাইপলাইন তৈরি হলে গভীর সমুদ্র থেকে আমদানি করা তেল বন্দরে নিয়ে আসতে সময় যেমন বাঁচবে তেমনি খরচও অনেকটাকমে যাবে ।

পাইপলাইনসহ ক্রুড এবং ডিজেলের জন্য তিনটি করে ৬ টি ট্যাংকেরতৈরি করতে মোট ৫৪২৬ কোটিটাকা খরচ পড়বে যার মধ্যে বাংলাদেশ দেবে ১১৩৩ কোটি টাকা এবং বাকি ৪২৯৩ কোটি টাকার যোগান দেবে চায়না এক্সিম ব্যাঙ্ক । ২০১৮ সালে প্রকল্পটির কাজশুরুর কথা রয়েছে ।

এদিকে, পায়রা বন্দরের মূল অবকাঠামো নির্মাণ, তীর রক্ষা বাঁধ ও অন্যান্য স্থাপনা নির্মাণে চীনের দুটি প্রতিষ্ঠানের সাথে বৃহস্পতিবার তিনটি সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেছে বাংলাদেশ সরকার।

XS
SM
MD
LG