অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বাংলাদেশে শব্দ দূষণ বর্তমানে ‘শব্দ-সন্ত্রাস’ নামে অভিহিত করা যায়


বাংলাদেশে শব্দ দূষণ বর্তমানে এমন পর্যায়ে পৌঁছেছে যে একে ‘শব্দ-সন্ত্রাস’ নামে অভিহিত করা যায় বলে মন্তব্য করেছেন পরিবেশবাদীরা ।

শুক্রবার ঢাকায় শব্দ দূষণ নিয়ে এক আলোচনায় তাঁরা বলেন অপদস্থ হওয়ার ভয়ে বেশির ভাগ মানুষ কোথাও অভিযোগ না করে নির্বিবাদে উচ্চ শব্দের ভয়ংকর যন্ত্রণা সহ্য করছেন।

আলোচনার শুরুতে লিখিত বক্তব্যে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন বাপার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম মোল্লা উচ্চ শব্দ দূষনের জন্য যানবাহনের অহেতুক হর্ন, ভবন নির্মাণের সামগ্রী, মাইক, ইট গুঁড়া করার যন্ত্র এবং বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানে অতি উচ্চমাত্রার শব্দ সৃষ্টিকারী সাউন্ড সিস্টেমের ব্যবহারকে দায়ী করেছেন। তিনি বলেন এর ফলে ভুক্ত ভুগিরা রাতে ঘুমাতে পারেননা, রোগীরা আরও অসুস্থ হয়ে পড়েন, শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ায় মারাত্মক ক্ষতি হয় এবং মানুষের কর্মক্ষমতার ওপর এর নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে। গর্ভবতী মা ও শিশুদের ওপর উচ্চ শব্দের প্রভাব আরও মারাত্মক বলে তিনি উল্লেখ করেন।

আলোচনায় পরিবেশবাদীরা ছাড়াও বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ অংশ নিয়েছেন। তারা শব্দ দূষণ রোধে আইনের কঠোর প্রয়োগের দাবি জানিয়েছেন।

please wait

No media source currently available

0:00 0:00:52 0:00

XS
SM
MD
LG