অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

মুসলমানদের নিজেদের মধ্যেকার দ্বন্দ্ব জঙ্গীবাদ উত্থানের অন্যতম কারন


আফগানিস্তানে নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক রাষ্ট্রদূত জালমে খালিলজাদ বলেছেন মুসলমানদের নিজেদের মধ্যেকার দ্বন্দ্ব ও মধ্যপ্রাচ্যে আঞ্চলিক আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করেই মূলত সেখানে জঙ্গীবাদের উত্থান ঘটেছে। ভয়েস অব আমেরিকার উর্দূ বিভাগের ফায়েস রহমানের সঙ্গে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি একথা বলেন। সাক্ষাৎকারের কিছু অংশ নিয়ে শুনুন সেলিম হোসেনের রিপোর্ট।

please wait

No media source currently available

0:00 0:02:40 0:00

যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত হিসাবে দীর্ঘ সময় আফগানিস্তানে দায়িত্ব পালনসহ যুক্তরাষ্ট্র সরকারের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ন দায়িত্বে থাকা রাষ্ট্রদূত জালমে খালিলজাদ তার অভিজ্ঞতার আলোকে সম্প্রতি The Envoy: From Kabul to the White House, My Journey Through a Turbulent World নামে একটি বই লিখেছেন। তাতে যেসব বিষয় তিনি উল্লেখ করেন তার মধ্যে ছিল আফগানিস্তানের শান্তি ও স্থিতি প্রতিষ্ঠায় যুক্তরাষ্ট্র ও পাকিস্তানের ভূমিকা, বুশ ও রেগান প্রশাসনের সঙ্গে কাজের অভিজ্ঞতা, ইত্যাদি।

ইসলাম ও জঙ্গীবাদের সঙ্গে সম্পৃক্ততা এবং সাম্প্রতিক সময়ের সবচেয়ে মারাত্মক জঙ্গী গোষ্ঠি আইসিসের উত্থানে পশ্চিমা বিশ্ব কোনোভাবে দায়ী কিনা এ প্রশ্নে তিনি বলেন, মুসলমানদের মধ্যেকার দ্বন্দ্বই এই জঙ্গীবাদ উত্থানের মূল কারন।

“আমি মনে করি আইসিসের উত্থানের মৌলিক কারন, সুন্নী শিয়া ইরান সৌদী আরব তুরস্ক, এদের মধ্যেকার দ্বন্দ্ব। কারন আমার মতে ইরানী নীতি ঐ অঞ্চলে; বিশেষ করে সিরিয়া ও ইরাকের সুন্নীদের জন্যে ভীষণ ক্ষতিকর; যার কারনেই আইসিস জঙ্গী গোষ্ঠীর উদ্ভব”।

ইরাক দখল বা ইরাক যুদ্ধ ভূল ছিল কিনা সে প্রশ্নে রাষ্ট্রদূত খালিলজাদ বলেন, “আমাদের গোয়েন্দা রিপোর্ট ভুল ছিল, এখন আমরা জানি যে সাদ্দামের কাছে বিধ্বংসী অস্ত্র সামান্যই ছিল। এ ভুল ইরানসহ আরো অনেকই করেছে। যাহোক আগে জানলে ইরাক দখল করা হতো না”।

আফগানিস্তানে শান্তি ও স্থিতি প্রতিষ্ঠায় যুক্তরাষ্ট্রের ভূমিকা সম্পর্কে তিনি বলেন নাইন ইলেভেনের আগে যুক্তরাষ্ট্রের কেনো পরিকল্পনা ছিল না। ঐ ঘটনার পর আল কায়েদা দমনেই আফগানিস্তান অভিযানে যেতে হয় যুক্তরাষ্ট্রের।

“এখন আফগানিস্তানের অবস্থা অনেক ভালো। নাইন ইলেভেনের আগে কাবুলসহ অনেক শহর প্রায় মৃত শহর ছিল। এখন শান্তি ও স্থিনি প্রতিনষ্ঠিত হযেছে, যুক্তরাষ্ট্রের সহযোগিতার কারনেই।“

রাষ্ট্রদূত খালিলজাদ, মুসলমান বিশ্বে সাম্প্রতিক সময়ে লেগে থাকা অস্থিতীশল অবস্থার পেছনে মুসলমানদের আনৈক্যকে দায়ি করেন।

“মুসলমানরা বিভক্ত, এক সময় যে ইসলাম সভ্যতার উন্মেষ ঘটিয়েছিল তারাই আজ বিভক্ত আর সেই সময় যে ইউরোপীয়নরা সমস্যায় ছিল তারা এখন উন্নত ও সমৃদ্ধ"।

রাষ্ট্রদূত খালিলজাদ কথা বলেন তালিবানের প্রতি পাকিস্তানের সাহযোগিতা সম্পর্কে, মতামত ব্যাক্ত করেন হিলারী ক্লিনটন সম্পর্কে, মন্তব্য করেন রিপাবলিকান প্রার্থীদের সম্পর্কেও।

XS
SM
MD
LG