অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

উগ্রবাদ, উৎকন্ঠা ও উত্তরণ এই ধারাবাহিক অনুষ্ঠানের এই পর্বেও আমরা তরুণ প্রজন্মের দ্রুত উগ্রবাদি হওয়ার সমস্যার প্রতি আলোকপাত করছি। একদিকে যেমন তরুণদের মধ্যে বেকারত্ব এবং এক ধরণের হতাশার সুযোগ নিয়ে এক শ্রেণীর কথিত ধর্মীয় নেতারা ধীরে ধীরে এদের কোমল মনের উপর চাপ দিয়ে থাকেন। তাদের দূর্বল জায়গাগুলোর উপর এমন সব মতাদর্শের প্রলেপ দেওয়ার চেষ্টা করে যে ক্রমশই তারা উগ্রবাদি চিন্তাধারার সহমর্মী হয়ে ওঠে। এই বিষয়টি বিশেষ করে তরুণ প্রজন্মের অভিবাসিদের ক্ষেত্রে বেশি প্রযোজ্য । তারা অনেক সময়ে লক্ষ্য করে যে বহু বছর ধরে ,এমনকী কয়েক প্রজন্ম ধরে অভিবাসি থাকার পরও তারা স্থানীয় সমাজের বৈষম্যের শিকার হচ্ছে। দীর্ঘ দিন ধরে পুষে রাখা তাদের হতাশা ও ক্ষোভের সদ্ব্যবহার করছে সহিংস উগ্রবাদিরা। উষ্মা ও ক্ষোভ থেকে জন্ম নেয় সহিংসতা।

অন্য দিকে আবার আমরা লক্ষ্য করি উঠতি বয়সের ছেলেমেয়েরা যেন কুসংসর্গে না থাকে বাবা-মা রা সে ব্যাপারে যতটা সতর্ক থাকেন, ধর্মীয় উগ্রবাদিদের ব্যাপারে তাঁরা ততটা সতর্ক নন। বরঞ্চ তাঁরা প্রথমে বুঝতেই পারেন না যে ধর্মের লেবাসে তাদের ছেলেমেয়েদের সঙ্গে হয়ত মেলামেশা করছে এমন কিছু তরুণ তরুণী যারা হয়ত তাদেরকে ধর্মের নামে ক্রমশই বিপথে পরিচালিত করবে। অভিভাবকেরা বরঞ্চ স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেন এ কথা ভেবে যে তাদের সন্তানেরা ধার্মিক হয়ে উঠছে। সেটা যে কত বড় ভুল সে কথা বুঝে ওঠার আগেই সর্বনাশের ঘন্টা বেজে ওঠে সর্বত্র। আসলে ধর্মকে আজকাল মানুষের কল্যাণের জন্য ব্যবহার না করে , তাকে ক্রমশই ব্যবহার করা হচ্ছে অসহিষ্ণুতা প্রকাশের উপায় হিসেবে। ধর্মের এই অপপ্রয়োগের বিরদ্ধে সোচ্চার হবার সময় এখনই ।

XS
SM
MD
LG