অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ভারত-চীন সীমান্তে আরও ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েন করবে ভারত


ভারত-চীন সীমান্ত বরাবর বসানোর জন্য বাড়তি ব্রহ্মোস সুপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র সেনার অস্ত্রভাণ্ডারে অন্তর্ভুক্ত করার পরিকল্পনায় সবুজ সঙ্কেত দিল ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার। দেশের পূর্ব প্রান্তে সুরক্ষা আরও মজবুত করতেই, আরও এ ধরনের ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েন করা হবে।

প্রতিরক্ষা সূত্রের খবর তেতাল্লিশ'শো কোটি টাকার বেশি অর্থমূল্যের চতুর্থ ব্রহ্মোস রেজিমেন্ট অনুমোদন করেছে সরকার। এই গোটা রেজিমেন্টে আছে প্রায় একশোটি ক্ষেপণাস্ত্র, পাঁচটি মোবাইল স্বয়ংক্রিয় লঞ্চার, যেগুলি বসানো থাকে হেভি ডিউটি ট্রাকে। আছে একটি মোবাইল কমান্ড পোস্ট। তাছাড়া থাকছে অন্যান্য হার্ডওয়ার, সফটওয়ার।

প্রসঙ্গত বলা যেতে পারে, এই ক্ষেপণাস্ত্র সেনাবাহিনীর পরীক্ষা-নিরীক্ষা প্রক্রিয়ার মধ্যে ছিল। শেষ পূর্ব সেক্টরে এই ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা হয় দু'হাজার পনেরো সালের মে মাসে।

সূত্রের খবর, এ ধরনের ক্ষেপণাস্ত্রগুলি দু'শো নব্বই কি.মি. পাল্লার। এর বিশেষত্ব হল, এটি পাহাড়ের আড়ালে লুকিয়ে থাকা শত্রু শিবিরের যে কোনও লক্ষ্যবস্তুকেও নির্ভূলভাবে আঘাত করতে সক্ষম।

ভারতীয় সেনাবাহিনী ইতোমধ্যেই তার ভাণ্ডারে ব্রহ্মোসের তিনটি রেজিমেন্টকে সামিল করেছে। প্রসঙ্গত বলা যেতে পারে, ব্রহ্মোস ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রকে সাবমেরিন, বিমান, জাহাজ বা ভূমি, যে কোনও জায়গা থেকেই নিক্ষেপ করা যায়। সেনার তিন বাহিনীতেই সামিল করা হয়েছে একে। কলকাতা থেকে পরমাশিষ ঘোষ রায়।

please wait

No media source currently available

0:00 0:00:41 0:00

XS
SM
MD
LG