অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

মিয়ান্মারে সামরিক বাহিনী সংবিধান মেনে চলার কথা বলেছে


মিয়ান্মারের সামরিক বাহিনী আজ বলেছে যে, তারা সংবিধান মেনে চলবে এবং তা সংরক্ষণ করবে। গতকাল জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুয়েতেরেস এবং মিয়ান্মারে পশ্চিমি দূতাবাসগুলো সে দেশে সামরিক অভূত্থান সম্পর্কে আশংকা প্রকাশ করেন। সেনাবাহিনীর ক্ষমতাশীল কমান্ডার ইন চিফ, সিনিয়র জেনারেল মিং অন ল্যাং এ সপ্তার গোড়ার দিকে বলেছিলেন যে, বিশেষ পরিস্থিতিতে ২০০৮ সালের সংবিধান বাতিল করা প্রয়োজনীয় হয়ে উঠতে পারে। এই সামরিক বাহিনী, যা কীনা স্থানীয় ভাবে তাতমাদাউ নামে পরিচিত, জানায় যে জেনারেল ল্যাং‘এর মন্তব্যকে ভুল বোঝা হয়েছে। ঐ বিবৃতিতে বলা হয় যে, বিভিন্ন সংগঠন ও সংবাদ মাধ্যম সেনা প্রধানের ভাষণের ভুল ব্যাখ্যা দিয়েছে এবং নিজেদের দৃষ্টিভঙ্গিতে তা তৈরি করেছে । বিবৃতিতে আরও বলা হয় যে, তাতমাদাউ বর্তমান সংবিধান মেনে চলছে এবং তা রক্ষা করেই তারা কাজ করবে।

বেশ কিছু সপ্তাহ ধরে সেনাবাহিনী এই অভিযোগ করে আসছে যে, নভেম্বরের যে নির্বাচনে আওন সান সূ চি‘র ন্যাশনাল লীগ ফর ডেমক্র্যাসি নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা লাভ করে, সেই নির্বাচনে বিপুল কারচুপি হয়েছে । ১৯৬২ থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত সামরিক হুন্তারাই মিয়ান্মার শাসন করে। আর সামরিক বাহিনী এখনও সরকারের শক্তিশালী অংশ।

XS
SM
MD
LG