অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

২০১৯-এর সরকার বিরোধী বিক্ষোভে অংশ নেয়ার জন্য হংকং-এ সাতজনকে সাজা প্রদান


ফাইল ফটো- গণতন্ত্রপন্থী কর্মী, আলবার্ট হো এবং ইয়েং সাম সহ বিবাদী পক্ষের অন্যান্যরা হংকংয়ের একটি আদালতে উপস্থিত হন। ১৭ মে, ২০২১।

বুধবার হংকং এর সাতজন গনতন্ত্রপন্থি কর্মীকে দীর্ঘ সাজা প্রদান করা হয়। ২০১৯ সালে অনোনুমোদিত বিক্ষোভে অংশ নেয়ার জন্য তাদের এই কারাবাসের সাজা দেয়া হয়েছে।

সাজাপ্রাপ্তদের মধ্যে রয়েছেন, সাবেক বিধায়ক সিড হো, ইয়ং সাম, অ্যালবার্ট হো, লিউং কোক যিনি ‘লং হেয়ার’ নামে পরিচিত, র‍্যাফায়েল ওয়ং, ফিগো চ্যান এবং লীগ অফ সোশ্যাল ডেমোক্র্যাট পার্টির এভারি এনজি।

জেলা আদালাতের বিচারক আম্যান্ডা উডকক এই সাজা প্রদানের সময় ঐ সাত জনের সকলেই আদালতে উপস্থিত ছিলেন। ২০১৯ সালের অক্টোবর মাসে বিতর্কিত প্রত্যার্পণ আইন সম্পর্কিত সরকার বিরোধী বিক্ষোভে অংশ নেয়ার জন্য তাদের সাজা দেয়া হয়। ঐ বিক্ষোভ শেষ পর্যন্ত হংকং ‘এর আরও বেশি স্বাধীনতার দাবিতে পরিণত হয়।

বিচারক উডকক বলেন, হংকং এর যে ক্ষুদে -সংবিধান রয়েছে যা বেসিক ল হিসেবে পরিচিত, সমাবেশ বা বিক্ষোভ প্রদর্শনের স্বাধীনতা নিশ্চিত করে তবে এই অধিকার পুরোপরি দেয়া হয়নি। সাংবিধানিক বিধিনিষেধ সাপেক্ষে এই অধিকার প্রয়োগ করা যায়।

সাজার ব্যাপ্তিকাল ১১ থেকে ১৬ মাস পর্যন্ত। ওয়ং বাদে, বিবাদি পক্ষের বাকি সবাই অন্যান্য অবৈধ সমাবেশে অংশ নেয়ার জন্য ইতিমধ্যে সাজা ভোগ করছেন।

২০১৯ সালের ঐ বিক্ষোভের পর গত বছর বেইজিং ঢালাও ভাবে হংকং এর জাতীয় নিরাপত্তা আইনটি পাশ করে। ঐ আইনের অধীনে কেউ যদি সন্ত্রাসবাদ, বিচ্ছিন্নতাবাদ, রাষ্ট্রীয় ক্ষমতার বিরুদ্ধে নাশকতামূলক কাজ বা বিদেশী বাহিনীর সঙ্গে যোগসাজশ করে তাহলে তার বিচার করা যাবে এবং দোষী সাব্যস্ত হলে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হতে পারে।

XS
SM
MD
LG