অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

অবশেষে শুরু হলো টোকিও অলিম্পিক : স্টেডিয়াম দর্শকশুণ্য


টোকিও অলিম্পিক (ছবি: রয়টার)

দর্শকদের অনুপস্থিতিতে কেবল মাত্র কয়েক শ’ গণমান্য ব্যক্তির সামনে এই উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হচ্ছে । বিশিষ্ট অতিথিদের মধ্যে রয়েছেন জাপানের সম্রাট নারুহিতো, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রঁ এবং যুক্তরাষ্ট্রের ফার্স্ট লেডি জিল বাইডেন।

টোকিও অলিম্পিকের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সূচনা হলো আজ শুক্রবার প্রায় জনশূণ্য স্টেডিয়ামে। এক বছর স্থগিত থাকার পর নানা বিতর্কের মধ্যে এই অলিম্পিক শুরু হলো।

দর্শকদের অনুপস্থিতিতে কেবল মাত্র কয়েক শ’ গণমান্য ব্যক্তির সামনে এই উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হচ্ছে । বিশিষ্ট অতিথিদের মধ্যে রয়েছেন জাপানের সম্রাট নারুহিতো, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রঁ এবং যুক্তরাষ্ট্রের ফার্স্ট লেডি জিল বাইডেন।

এবার, টোকিও অলিম্পিক কোভিড মহামারির কারণে খুব জটিল হয়ে উঠেছে। অন্যান্য কারণেও সমালোচনার সম্মুখীন হতে হচ্ছে আয়োজকদের। জনমত জরিপগুলোতে লক্ষ্য করা গেছে জাপানের অধিকাংশ নাগরিক চাইছেন না মহামারির মাঝে এই অলিম্পিক অনুষ্ঠিত হোক।

আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির প্রধান বৃহস্পতিবার সম্রাটের সঙ্গে সাক্ষাত করেন এবং তাকে আশ্বাস দিয়েছেন যে দেশে যাতে করোনা সংক্রমণ ছড়িয়ে না পড়ে সেজন্য আয়োজকরা সর্বাত্মক চেষ্টা করছেন।

আয়োজকরা দর্শকদের উপস্থিতির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছেন।

সম্রাট নারুহিতো টোকিওর অলিম্পিকের উদ্বোধনী ঘোষণার আগে সেই ১৯৬৪ সালে তাঁর দাদা সম্রাট হিরোহিতো সর্বশেষ টোকিও অলিম্পিকের উদ্বোধনী ঘোষণা করেছিলেন। তখন জাপানের জন্য দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ধ্বংসযজ্ঞ থেকে বেরিয়ে আসার অর্থনীতির এক নতুন শক্তি হিসেবে কাজ করেছিলো এই অলিম্পিক গেমস।

XS
SM
MD
LG