অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

কিম-ট্রাম্প শীর্ষ বৈঠকের আগে জাপানের প্রধানমন্ত্রীর হোয়াইট হাউজ সফর


যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প বলছেন, আগামি সপ্তায় উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং ঊনের সঙ্গে তাঁর ঝুঁকিপূর্ণ, ঐতিহাসিক বৈঠকের ফলাফল নির্ভর করছে প্রস্তুতির উপর নয় , সদিচ্ছা এবং আচরণের উপর।

আজ হোয়াইট হাউজে জাপানি প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে’র সঙ্গে তাঁদের বৈঠকের আগে তাঁর পাশে বসেই ট্রাম্প বলেন যে তিনি সিঙ্গাপুরের শীর্ষ বৈঠকের জন্য প্রস্তুত যাকে তিনি ছবি তোলার উপলক্ষের চেয়ে আরও গুরুত্বপুর্ণ বলে বর্ণনা করেছেন।

উত্তর কোরিয়া সম্পর্কে ট্রাম্প বলেন যে তাদেরকে পরমাণু মুক্ত হতে হবে, নইলে আমরা নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করতে পারবো না।

এই শীর্ষ বৈঠক সম্পর্কে তাঁর দেশের উদ্বেগ জানানোর জন্য আবে ট্রাম্পের সঙ্গে আলোচনা করতে এসছেন। বৈঠকের পর এরা দুজন সাংবাদিকদের সঙ্গে আলোচনা করবেন।

ওয়াশিংটনের পথে রওয়ানা হবার আগে আবে বলেন যে তাঁর সরকার দেখতে চায় , উত্তর কোরিয়ার পরমাণু এবং ব্যালিস্টিক ক্ষেপনাস্ত্র কর্মসূচি গুটিয়ে আনার ব্যাপারে অগ্রগতি সাধিত হয়েছে এবং তিনি চান যে ট্রাম্প, ১৯৭০’ আর ১৯৮০ ‘র দশকে উত্তর কোরিয়া যে জাপানি নাগরিকদের অপহরণ করেছিল সে নিয়েও কিমের সঙ্গে কথা বলেন।

সিংগাপুরে ট্রাম্প-কিম শীর্ষ বৈঠকের আগে চীন ও দক্ষিণ কোরিয়ার নেতারা দুবার কিমের সঙ্গে দেখা করেছেন এবং আবে যদিও বলেছেন যে তিনি তাঁর এ ধরণের আলোচনা করতে কোন আপত্তি নেই, এখনও তাঁদের মধ্যে কোন বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়নি।

যুক্তরাষ্ট্রের শ্রমিকদের স্বার্থ রক্ষার জন্য সম্প্রতি ট্রাম্প যে ইস্পাত ও অ্যালুমিনিয়ামের উপর শুল্ক আরোপের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন আবে সম্ভবত সে বিষয়েও কথা বলবেন। জাপানসহ যুক্তরাষ্ট্রের মিত্ররা এই পদক্ষেপের বিরুদ্ধে আপত্তি জানিয়েছে এবং এ ব্যাপারে ছাড় চাইছে। আবে নিজেও বলেছেন যে এ ধরণের বিধিনিষেধ জরুরি নয়।

XS
SM
MD
LG