অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবসে শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় স্মরণ করা হলো শ্রেষ্ঠ সন্তানদের


শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবসে শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় স্মরণ করা হলো শ্রেষ্ঠ সন্তানদের

বাংলাদেশের আপামর জনসাধারণ সোমবার গভীর শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় স্মরণ করেছেন জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের যারা ১৯৭১এর স্বাধীনতা যুদ্ধের বিজয়ের ঊষালগ্নে পাকিস্তানী হানাদার বাহিনী ও তাদের এদেশিয় দোসরদের হাতে প্রাণ দিয়েছিলেন। 

বাংলাদেশের আপামর জনসাধারণ সোমবার গভীর শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় স্মরণ করেছেন জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের যারা ১৯৭১এর স্বাধীনতা যুদ্ধের বিজয়ের ঊষালগ্নে পাকিস্তানী হানাদার বাহিনী ও তাদের এদেশিয় দোসরদের হাতে প্রাণ দিয়েছিলেন।

আজ ছিল শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের বিজয়ের আগ মুহূর্তে দখলদার বাহিনী এবং তাঁদের এদেশিয় দোসররা দেশকে মেধা শূন্য করার নীলনকশা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে নির্বিচারে হত্যা করেছিল শিক্ষক, ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, সাংবাদিক ও অন্যান্য বুদ্ধিজীবীদের।

জাতির এই সূর্য সন্তানদের স্মরণ করতে করোনাকালেও বিভিন্ন শ্রেণী পেশার হাজার হাজার মানুষ, বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন রাজধানী ঢাকার মিরপুরে শহিদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতি সৌধে ও রায়ের বাজার বধ্যভূমিতে এবং দেশের বিভিন্ন স্থানে শহিদ বেদিতে ফুলেল শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন। করোনা দুর্যোগের কারনে রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেরা উপস্থিত হতে না পারলেও তাঁদের পক্ষে মিরপুর শহিদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতি সৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন তাঁদের নিজ নিজ সামরিক সচিবরা। রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী এ উপলক্ষে পৃথক বানিতে শহিদ বুদ্ধিজীবীদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

শহীদ বুদ্ধিজীবীদের আত্মত্যাগকে স্মরণ করে কথা বলেছেন সাধারণ মানুষ । আবেগ আপ্লুত হয়ে কথা বলেছেন শহিদ বুদ্ধিজীবী মাকসুদ আলীর কন্যা তাহমিনা খান। দিবসটি উপলক্ষে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে আলোচনা এবং মসজিদ ও বিভিন্ন উপাসনালয়ে বিশেষ প্রার্থনা করা হয়।


XS
SM
MD
LG