অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

প্রথম টেস্টে পাকিস্তানের কাছে ৮ উইকেটে হারলো বাংলাদেশ


পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজম চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে প্রথম টেস্ট ক্রিকেট ম্যাচের পঞ্চম দিনের খেলা জয়ের পর সতীর্থ হাজহার আলীর সাথে উদযাপন করছেন।৩০ নভেম্বর, ২০২১। (ছবি-এএফপি/ মুনির উজ জামান)

পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে ৮ উইকেটের বড় ব্যবধানে হেরে ১-০তে পিছিয়ে গেল বাংলাদেশ।

মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথমটির পঞ্চম দিনে মাঠে নামে দুদল।

ম্যাচের শেষদিন পাকিস্তানের জয়ের জন্য ৯৩ রান দরকার পড়ে। হাতে ছিল ১০ উইকেট। আগের দিনের অপরাজিত থাকা দুই ওপেনার আবিদ আলী ও আব্দুল্লাহ শফিক দারুণ খেলে ইনিংস বড় করতে থাকেন। তবে পাকিস্তানের দলীয় ১৫১ রানের মাথায় আঘাত হানেন মেহেদী হাসান মিরাজ। শফিককে এলবির ফাঁদে ফেলেন এই স্পিনার। ১২৯ বলে ৮টি চার ও একটি ছক্কায় ৭৩ রান করেন।

কিন্তু আবিদকে তার টেস্ট ক্যারিয়ারের পঞ্চম সেঞ্চুরি থেকে বঞ্চিত করেন তাইজুল ইসলাম। প্রথম ইনিংসের মতো এবারও পাকিস্তান ওপেনার তাইজুল ইসলামের বলে এলবির শিকার হন। তবে ৯১ রানে আউট হওয়ায় আক্ষেপ নিয়েই মাঠ ছাড়েন। প্রথম ইনিংসে সেঞ্চুরির করা আবিদ এবার ১৪৮ বলে ১২টি চারে নিজের ইনিংস সাজান।

চতুর্থ ইনিংসে বাংলাদেশ বোলারদের এই দুটি সাফল্যই ধরা পড়ে। বাকিটা সময় হেসেখেলেই ব্যাট করে পাকিস্তানের জয় নিশ্চিত করেন আজহার আলী ও বাবর আজম। আজহার ২৪ ও অধিনায়ক বাবর ১২ রানে অপরাজিত থাকেন।

এর আগে চতুর্থ দিন ২০২ রানের লক্ষ্যে বিনা উইকেটে ১০৯ রানে মাঠ ছাড়ে দলটি। আবিদ আলী ৫৬ ও আব্দুল্লাহ শফিক ৫৩ রানে মাঠ ছাড়েন। যদিও বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসের ৩৩০ রানের জবাবে পাকিস্তান ২৮৬ রান করতে পেরেছিল। তবে লিড নিয়েও দ্বিতীয় ইনিংসে ধস নামে টাইগার শিবিরে। করতে পারে মাত্র ১৫৭ রান।

দুই ইনিংসে দারুণ ব্যাট করে ম্যাচ সেরা নির্বাচিত হন পাকিস্তান ওপেনার আবিদ আলী।

আগামী ৪ ডিসেম্বর মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট শুরু হবে।

XS
SM
MD
LG