অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বাংলাদেশে করোনায় আরও ছয়জনের মৃত্যু


বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে ছয়জনের মৃত্যু। (ছবি- বাংলা নিউজ ২৪)

গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলাদেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ছয়জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃত্যু হয়েছে ২৮ হাজার ২৮ জনের।

নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৩২৯ জন। সব মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৫ লাখ ৭৯ হাজার ৩২৫ জন। মৃত ছয়জনের মধ্যে চারজন পুরুষ ও দুইজন নারী।

রবিবার বিকালে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, ঢাকা সিটিসহ দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ও বাড়িতে উপসর্গ বিহীন রোগীসহ গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ২৮৮ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ১৫ লাখ ৪৪ হাজার ১৫০ জন। সারাদেশে সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ৮৪৮টি ল্যাবে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা হয়েছে। এর মধ্যে আরটি-পিসিআর ল্যাব ১৫১টি, জিন এক্সপার্ট ৫৭টি, র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন ৬৪০টি। এসব ল্যাবে ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ২১ হাজার ৪০০টি। মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ২১ হাজার ৬১২টি। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে এক কোটি ১১ লাখ ২০ হাজার ১৯৮টি।

এতে আরও জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষায় শনাক্তের হার ১ দশমিক ৫২ শতাংশ। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৪ দশমিক ২০ এবং শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৭ দশমিক ৭৭ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৭৭ শতাংশ।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানানো হয়, ২৪ ঘণ্টায় মৃত ছয়জনের মধ্যে রয়েছেন ঢাকা বিভাগের একজন, রাজশাহী বিভাগের দুজন, বরিশাল বিভাগের একজন ও রংপুর বিভাগের দুজন।

মৃতদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ২১ থেকে ৩০ বছর বয়সের মধ্যে একজন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে তিনজন, ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে একজন মারা গেছেন।

এতে আরও জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে এসেছেন ৪৬ জন ও আইসোলেশন থেকে ছাড় পেয়েছেন ৫৯ জন। এ পর্যন্ত আইসোলেশনে এসেছেন তিন লাখ ৮৮ হাজার ৮৬৪ জন। আইসোলেশন থেকে ছাড়পত্র পেয়েছেন তিন লাখ ৫৩ হাজার ৬৫০ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ৩৪ হাজার ৮১৪ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য মতে, ২০২০ সালের ৮ মার্চ দেশে করোনা ভাইরাসের প্রথম রোগী শনাক্ত হয়। এর ১০ দিন পর ১৮ মার্চ করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়। এরপর ধীরে ধীরে আক্রান্তের হার বাড়তে থাকে।

XS
SM
MD
LG