অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ওয়াশিংটন জার্মানির শোলজের সাথে ঘনিষ্ঠ সম্পর্কের ব্যাপারে আশাবাদী


জার্মানির নতুন চ্যান্সেলর ওলাফ শোলজ, ৭ই ডিসেম্বর, ২০২১, ছবি-এএফপি

যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা জার্মানির আগামি চ্যান্সেলর ওলাফ শোলজের সাথে সুসম্পর্ক গড়ে তোলার বিষয়ে আশাবাদী। সোশ্যাল ডেমোক্র্যাট, গ্রীনস এবং নিও-লিবারেল ফ্রি ডেমোক্র্যাট সমন্বিত নতুন জোট সরকার, ইতিমধ্যে আভাস দিয়েছে, দুই দেশ যৌথভাবে দীর্ঘস্থায়ী পারমাণবিক কর্মসূচি অব্যাহত রাখবে, পাশাপাশি পশ্চিম জার্মানির একটি বিমানঘাঁটিতে যুক্তরাষ্ট্রের যে ২০টি পারমাণবিক বোমা মোতায়েন আছে, সেগুলোও অব্যাহত থাকবে।

স্নায়ুযুদ্ধের শুরু থেকেই, জার্মানি আমেরিকান কৌশলগত পারমাণবিক অস্ত্রগুলিকে দেশে রাখার অনুমতি দিয়েছে, তবে শোলজের সোশ্যাল ডেমোক্র্যাটস (এসপিডি) এর বাম রাজনীতির প্রধান ব্যক্তিরা এই ব্যবস্থার বিরোধিতা করেছে। তাদের নির্বাচনী ইশতেহারে, এসপিডি এবং গ্রীনস উভয়েরই নির্বাচনী কর্মসূচিই জার্মানিতে পারমাণবিক অস্ত্রের ঘাঁটির নিন্দা করেছে।

আসন্ন জোট সরকারের পারমাণবিক ব্যবস্থা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্তে ওয়াশিংটন স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছে। এ ব্যবস্থা যে কোনো ভাবে পরিত্যক্ত হলে ট্রান্সআটলান্টিক নিরাপত্তা সম্পর্ক জটিল হয়ে পড়ার আশংকা ছিল। জোট সরকারের চুক্তির স্বীকৃতিকে, নতুন সরকার এবং বাইডেন প্রশাসনের মধ্যে কীভাবে সম্পর্ক গড়ে উঠতে পারে তার একটি আশাব্যঞ্জক লক্ষণ হিসাবে দেখা হচ্ছে।

শোলজের যুক্তরাষ্ট্রকে "ইউরোপের সবচেয়ে কাছের এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অংশীদার" বলে অভিহিত করেন। তার পূর্বসূরি আঙ্গেলা মার্কেলের বিদায়ী সরকারের অর্থমন্ত্রী হিসেবে তিনি ওয়াশিংটনের নীতিনির্ধারকদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক গড়ে তুলেছিলেন। পশ্চিমা কূটনীতিকদের মতে, যদিও, এ বার পথ অমসৃন হবার আশংকা রয়েছে।

XS
SM
MD
LG