অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

জাতিসংঘে ভেটো এখন আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু


নিউ ইয়র্কে জাতিসংঘের সদর দফতরে জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের জরুরি অধিবেশন চলাকালীন প্রতিনিধিদলগুলি এক মুহুর্তের নীরবতার জন্য দাঁড়িয়ে আছে। ২৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২২

জাতিসংঘের সদস্য রাষ্ট্রগুলো মঙ্গলবার নিরাপত্তা পরিষদের পাঁচ স্থায়ী সদস্যকে তাদের ভেটো দেওয়ার সময় আরও জবাবদিহিতার আওতায় আনার পক্ষে ভোট দিয়েছে।

সাধারণ পরিষদে ঐকমত্যের মাধ্যমে বা বলা যায় ভোট ছাড়াই খসড়া প্রস্তাবটি গৃহীত হয়। এটি লিকটেনস্টাইন উত্থাপন করে এবং ১০০টিরও বেশি দেশ সহ-স্পন্সর করেছিল।

এই প্রস্তাব অনুযায়ী নিরাপত্তা পরিষদের পাঁচটি স্থায়ী সদস্যের মধ্যে এক বা একাধিক সদস্য ভেটো দিলে সাধারণ পরিষদের সভাপতিকে প্রতিবার জাতিসংঘের ১৯৩টি সদস্য রাষ্ট্রের একটি সভা আহ্বান করতে হবে। তারপরে যে পরিস্থিতির উপর ভেটো দেওয়া হয়েছিল তার উপর সাধারণ পরিষদ বিতর্ক করবে এবং যারা ভেটো দিয়েছে তাদের কর্ম ব্যাখ্যা করার জন্য পরিষদে ভাষণ দেওয়ার আমন্ত্রণ জানানো হবে।

নিরাপত্তা পরিষদের পাঁচটি স্থায়ী সদস্য হলো ব্রিটেন, চীন, ফ্রান্স, রাশিয়া ও যুক্তরাষ্ট্র। যুক্তরাষ্ট্র এবং ব্রিটেন এই পদক্ষেপের সহ-স্পন্সরদের মধ্যে ছিল। রাশিয়ার প্রতিনিধি বলেন যে তার প্রতিনিধিদলের "ঐকমত্যে যোগ দেওয়ার ইচ্ছা নেই।"

লিকটেনস্টাইনের রাষ্ট্রদূত, ক্রিশ্চিয়ান ওয়েনাওয়েসার, পাঠ্যটি উপস্থাপন করতে গিয়ে বলেছেন, "ভেটো ক্ষমতা সর্বদা জাতিসংঘের সনদের উদ্দেশ্য এবং নীতিগুলি অর্জনের জন্য কাজ করার দায়িত্ব নিয়ে আসে।" তিনি বলেন, নিরাপত্তা পরিষদ যখন কাজ করতে অক্ষম তখন সকল সদস্যকে এগিয়ে আসতে হবে।

১৯৪৫ সালে জাতিসংঘ স্থাপিত হওয়ার পর থেকে ২৯৫ বার ভেটো দেওয়া হয়েছে। বেশিরভাগই ভেটোই দিয়েছে ে ইউএসএসআর/রাশিয়া। ব্রিটেন এবং ফ্রান্স এটি সবচেয়ে কম ব্যবহার করেছে, সর্বশেষ ব্যবহার করেছে ১৯৮৯ সালে। রাশিয়া সাম্প্রতিক সময়ে ইউক্রেনের বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহণ বন্ধ করে দিয়েছে, আর গত এক দশক ধরে সিরিয়ার সংঘাতের পাশাপাশি বিশ্বের অন্যান্য অংশে সংকট নিয়েও তা করা হয়েছে।

XS
SM
MD
LG