অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

চীনকে অগ্রাহ্য করে তাইওয়ান পৌঁছেছেন ন্যান্সি পেলোসি


যুক্তরাষ্ট্রের হাউস স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরের সমর্থকরা তাইপেই-তে জড়ো হয়েছেন। ২ আগস্ট, ২০২২।

চীনের সতর্কতা অগ্রাহ্য করে যুক্তরাষ্ট্রের সংসদের স্পিকার পেলোসির নেতৃত্বে দেশটির কংগ্রেসের একটি প্রতিনিধিদল মঙ্গলবার শেষার্ধে তাইওয়ান পৌঁছেছেন। চীন এই সফরে সামরিক প্রতিক্রিয়ার হুমকি দিয়েছে।

পেলোসি বুধবার তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন এবং অন্যান্য উচ্চপদস্থ আইনপ্রণেতার সাথে দেখা করবেন বলে আশা করা যাচ্ছে।

চীন সমালোচক পেলোসি তাইওয়ান সফরে যাবেন বলে কয়েক সপ্তাহ ধরে গণমাধ্যমগুলো অনুমান করছিল।

চীন বারবার সতর্ক করেছিল যে, পেলোসির ভ্রমণ স্বশাসিত ঐ দ্বীপের ওপর চীনের দাবিকৃত সার্বভৌমত্বের অগ্রহণযোগ্য লঙ্ঘন বলে বিবেচিত হবে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সূত্রের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, মঙ্গলবারের প্রথমার্ধে বেশ কয়েকটি চীনা যুদ্ধবিমান এবং যুদ্ধজাহাজ তাইওয়ান প্রণালীতে মধ্যরেখার কাছাকাছি এসেছিল।

১৯৭৯ সালে যুক্তরাষ্ট্র চীনকে কূটনৈতিক স্বীকৃতি দেয়ার পর আনুষ্ঠানিকভাবে তাইওয়ানের সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করে। তবে যুক্তরাষ্ট্র দেশটির কংগ্রেসের নির্দেশ অনুসারে তাইওয়ানকে প্রতিরক্ষামূলক অস্ত্র সরবরাহ করা অব্যাহত রেখেছে।

যদিও যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা নীতিতে কোনো পরিবর্তন হওয়ার কথা অস্বীকার করেছেন, তবে বাইডেনের মন্তব্যগুলো তার অনেক পূর্বসূরিদের থেকে আলাদা। তারা তাইওয়ানের প্রতিরক্ষার ক্ষেত্রে “কৌশলগত অস্পষ্টতা”-র নীতি ব্যবহার করেছিলেন।

ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইসিস গ্রুপের একজন একজন জ্যেষ্ঠ তাইওয়ান ভিত্তিক বিশ্লেষক আমান্ডা সিয়াও-এর মতে, এই প্রেক্ষাপটে পেলোসির সফর চীনের জন্য আরও বেশি উদ্বেগজনক।

১৯৯৭ সালে প্রাক্তন হাউস স্পিকার নিউট গিংরিচ তাইওয়ানে কংগ্রেসের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেয়ার পর এটি যুক্তরাষ্ট্রের সর্বোচ্চ পর্যায়ের তাইওয়ান সফর।

XS
SM
MD
LG