অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

পর্যটকের সংখ্যা বৃদ্ধি করতে করোনাকালের সীমান্ত কড়াকড়ি শিথিল করবে জাপান


ফাইল ছবি—টোকিওর গিনজা বিপনী মাস্ক পরিহিত ক্রেতা একটি ডিপিার্টমেন্ট স্টোরের মাস্ক পরিহিত সিংহ মূর্তির পাশে দাঁড়িয়ে নিজের মোবাইল ফোন পরীক্ষা করছেন (৩০ আগস্ট, ২০২২)

জাপানের প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা বৃহস্পতিবার জানান, পর্যটন শিল্পকে পুনরুজ্জীবিত করতে, কোভিড-১৯ সংক্রান্ত বেশ কিছু সীমান্ত বিধিনিষেধ বাতিল করবে জাপান ১১ অক্টোবর থেকে পর্যটকদের আবারও জাপানে ঢুকতে দেওয়া হবে ।

ক্ষেত্রবিশেষে ভিসা বিহীন প্রবেশাধিকার আবার চালু করা হবে এবং দৈনিক আগমনের ওপর যে বিধিনিষেধ ছিল তাও বাতিল করা হবে। নিউইয়র্কের একটি সংবাদ সম্মেলনে জাপানের প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা এই দীর্ঘ-প্রতীক্ষিত নীতিমালা পরিবর্তনের ঘোষণা দেন।

এসব পরিবর্তন এমন সময় এলো, যখন জাপানে, ২৮ দিনের গড় হিসাবে বিশ্বের সব চেয়ে বেশি, , ৩ লাখ ৫২ হাজার ১৫০জন কোভিড আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে।জন্স হপকিন্স করোনাভাইরাস গবেষণা কেন্দ্র থেকে এই তথ্য পাওয়া গেছে।

জুন থেকে জাপান গাইডেড ট্যুরে পর্যটকদের দেশটিতে প্রবেশের অনুমতি দেওয়া শুরু করে। নিবন্ধিত পর্যটন প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে যেসব পর্যটক, ননগাইডেড ট্যুরের বুকিং দিয়েছিলেন, তারাও সেপ্টেম্বর থেকে জাপান ভ্রমণে যেতে পারবেন।

সেপ্টেম্বরে জাপান টিকার পূর্ণডোজ গ্রহণকারী পর্যটকদের জন্য আগমন-পূর্ব বাধ্যতামূলক পিসিআর টেস্ট বাতিল করেছে। তবে দৈনিক ৫০ হাজারের বেশি মানুষকে প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে না।

কিয়োডো নিউজ এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, এই নীতিমালা অসংখ্য পর্যটকের জন্য জাপানের দুয়ার খুলে দিয়েছে। তবে এই নীতির আ্ওতায় তারাই জাপানে আসতে পারবেন, যারা তিনবার ভ্যাকসিন নিয়েছেন অথবা কোভিড-১৯ পরীক্ষায় নেগেটিভ রিপোর্ট পেয়েছেন। ভ্রমণের আগে পর্যটকদের এই রিপোর্ট দেখাতে হবে।

প্রায় ২৫ বছরের মধ্যে ইয়েনের মূল্য ডলারের বিপরীতে সর্বনিম্ন পর্যায়ে যাওয়ার পর, প্রধানমন্ত্রী জাপানের অর্থনীতিকে চাঙ্গা করার এই পদক্ষেপ নিলেন।

রয়টার্সের প্রতিবেদনে জানা গেছে, “ চলতি বছর জাপানের মুদ্রার প্রায় ২০ শতাংশ অবমূল্যায়ন হয়েছে , যা গত ২৪ বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন স্তরে নেমে গেছে”।

পর্যটনের মাধ্যমে অর্থনীতিকে চাঙ্গা করার লক্ষ্যে, বাড়তি উদ্যোগ হিসেবে জাপান সরকার পর্যটকদের জন্য দেশব্যাপী বিশেষ ছাড় দিচ্ছে। এটি বিদেশীদের জন্য জাপানকে পর্যটন গন্তব্য হিসেবে বেছে নেওয়ার প্রণোদনা হিসেবে কাজ করবে।

XS
SM
MD
LG