অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

অসলোতে ইরানি দূতাবাসে বেশ কয়েকজন লোক প্রবেশের চেষ্টা করে


২৯ সেপ্টেম্বর নরওয়ের অসলোতে ইরানের দূতাবাসের সামনে এক বিক্ষোভের সময় পুলিশ কর্মকর্তারা পাহারা দিচ্ছেন।

অসলোর পুলিশ বৃহস্পতিবার জানিয়েছে, সহিংস জনতার মধ্যে বেশ কয়েকজন লোক অসলোতে অবস্থিত ইরানি দূতাবাসে প্রবেশের চেষ্টা করেছে। সংঘর্ষ শুরু হলে পুলিশকে লক্ষ্য করে তারা পাথর নিক্ষেপ করে। কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ৯০ জনকে আটক করা হয়েছে।

ইরানে, ইরানের নৈতিকতা পুলিশের হেফাজতে আটক ২২ বছর বয়সী মাহসা আমিনির মৃত্যুর প্রতিবাদে অসলোতে ঐ কূটনৈতিক মিশনের বাইরে একদল লোক জড়ো হয়। তাদের অনেকে চিৎকার করছিল, অন্যদের কাঁধে কুর্দি পতাকাও দেখা যায় । কেউ কেউ আবার কুর্দিস্তানের স্বাধীনতা, নারী স্বাধীনতার আহ্বান জানান এবং আমিনির নাম ধরে চিৎকার করেন।

নরওয়ের রাজধানীর পুলিশ জানিয়েছে, “অনেক মানুষ সহিংস আচরণ করছে।”

হিজাব পরার নিয়ম ভাঙার অভিযোগে আমিনিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল এবং ১৬ সেপ্টেম্বর তিনি মারা যান। ইরানি পুলিশ জানিয়েছে, তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন এবং তার সঙ্গে কোনো দুর্ব্যবহার করা হয়নি। তবে আমিনির পরিবার এ বিষয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেছে। তার মৃত্যুর প্রতিবাদে ইরানের কয়েক ডজন শহর, ছোট ছোট এলাকা ও গ্রামে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ার পর অসলোতেও সংঘর্ষ হয়।

XS
SM
MD
LG