অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ষাটোর্ধ্ব নাগরিকদের করোনা টিকার চতুর্থ ডোজ দেবে বাংলাদেশ


সচিবালয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক
বাংলাদেশের ষাটোর্ধ্ব নাগরিকদের করোনার টিকার চতুর্থ ডোজ অথবা দ্বিতীয় বুস্টার ডোজ দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। সোমবার (৫ ডিসেম্বর) সচিবালয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনে বুস্টার ডোজে অগ্রাধিকার পাবেন ষাটোর্ধ্ব নাগরিকরা।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, “যারা ৬০ বছরের ঊর্ধ্বে আছেন, তারা যেকোন কেন্দ্রে গিয়েও চার নাম্বার ডোজ অথবা ২য় বুস্টার ডোজ নিতে পারবেন।”

জাহিদ মালেক জানান যে বাংলাদেশের ৯৮ শতাংশ প্রাপ্ত বয়স্কদের টিকা দেওয়া হয়ে গেছে। আর, শিক্ষার্থীদের টিকা দেওয়া হচ্ছে। ইতোমধ্যেই বাংলাদেশের ১৪ কোটি মানুষকে প্রথম ডোজ ও প্রায় ১৩ কোটি মানুষকে দ্বিতীয় ডোজ এবং ছয় কোটি মানুষকে তৃতীয় ডোজ বা বুস্টার টিকা দেয়া হয়েছে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, “আমরা সারাদেশে সাত দিনের বিশেষ ক্যাম্পেইনে দ্বিতীয় ও বুস্টার ডোজ কার্যক্রম শুরু করেছি। চলতি এই ক্যাম্পেইনে যে কেউ চাইলে এই বুস্টার ডোজ নিতে পারবেন।” তিনি জানান যে ১ থেকে ৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত কর্মসূচি চলবে। এবার টিকার লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ৯০ লাখ ডোজ। ক্যাম্পেইনে মোট ১৭ হাজার ১১৬টি টিম কাজ করবে।

XS
SM
MD
LG