অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

এলডিসির অগ্রাধিকার বানিজ্য সুবিধা বৃদ্ধির প্রস্তাবে সমর্থন জানালো বাংলাদেশ  


বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি

স্বল্পোন্নত দেশসমুহ বা এলডিসি গ্রুপের পক্ষ থেকে বিশ্ব বাণিজ্য সংস্থা (ডব্লিউটিও)’র অগ্রাধিকার বাণিজ্য সুবিধার সময় সীমা ১২ বছর বাড়ানোর যে প্রস্তাব করা হয়েছে তাকে সমর্থন করার জন্য সকল পক্ষকে আহ্বান জানিয়েছে বাংলাদেশ।

জিনিভায় জাতিসংঘের বাণিজ্য ও উন্নয়ন বিষয়ক সংস্থা আঙ্কটাড আয়োজিত এলডিসিভূক্ত ৪৬ টি দেশের বাণিজ্য মন্ত্রীদের ভার্চুয়াল সম্মেলনে বৃহস্পতিবার রাতে বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি এ আহ্বান জানিয়েছেন বলে শুক্রবার বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে। টিপু মুনশি বলেন, ডব্লিউটিও এর ‘হংকং মিনিস্টেরিয়াল ডিক্লারেশন’ অনুযায়ী শুল্ক ও কোটামুক্ত বাজার সুবিধা এবং ‘নাইরোবি মিনিস্টেরিয়াল ডিক্লারেশন’ অনুযায়ী প্রিফারেন্সিয়াল রুলস অব অরিজিন উন্নত দেশসমূহকে এলডিসিভূক্ত দেশকে প্রদান করতে হবে। স্বল্প উন্নত দেশ সমূহের উৎপাদন ক্ষমতা বৃদ্ধি ও কাঠামোগত উন্নয়নে আঙ্কটাডকে কার্যকর সহযোগিতা প্রদানেরও আহবান জানান তিনি।

করোনা মহামারির কারণে স্বল্পোন্নত দেশগুলোর অর্জিত অগ্রযাত্রা ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে বলে উল্লেখ করে বাণিজ্য মন্ত্রী বলেন বাংলাদেশ সফলভাবে এই দুর্যোগ মোকাবিলা করে যাচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে বাংলাদেশসহ অন্যান্য এলডিসির উন্নয়নে আন্তর্জাতিক সহযোগিতা কার্যক্রম আরও জোরদার করার প্রয়োজন বলে তিনি উল্লেখ করেন। একইসাথে তিনি করোনার অভিঘাত, ডিজিটাল ডিভাইড ও জলবায়ুর বৈরী প্রভাব মোকাবেলায় প্রযুক্তি হস্তান্তর এবং শিল্পসহ অন্যান্য খাতের উৎপাদন ক্ষমতা বাড়াতে কাঠামোগত সহায়তা প্রদানের ওপরও জোর দেন। তিনি বলেন আগামীতে অনুষ্ঠিতব্য আঙ্কটাড সম্মেলন, ডব্লিউটিও মন্ত্রী পর্যায়ের সম্মেলন, জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদ অধিবেশন এবং এলডিসি-৫ সম্মেলনে বিশ্ব সম্প্রদায়ের প্রতিশ্রুতি আদায় ও এলডিসির স্বার্থ সংরক্ষণের বিষয়সমূহ কার্যকর ভাবে উপস্থাপনের জন্য আঙ্কটাডকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে হবে।

সন্মেলনে আঙ্কটাডের সেক্রেটারি জেনারেল রেবেকা গৃনিস্পান উপস্থিত ছিলেন। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে আগামী ৩ থেকে ৭ অক্টোবর আঙ্কটাড-এর ১৫তম অধিবেশন ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত হবে। এই অধিবেশন স্বল্পোন্নত দেশগুলোর করোনা মহামারি পরবর্তী চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা ও উন্নয়ন কর্মসূচি প্রণয়নে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বলে উল্লেখ করে এতে বলা হয়েছে আঙ্কটাড ‘এর অধিবেশনে চলমান করোনা মহামারির প্রেক্ষাপটে স্বল্পোন্নত দেশগুলোর বাণিজ্যিক, আর্থিক ও কারিগরি সহযোগিতাসহ ২০২২ থকে ২০৩১ সাল

পর্যন্ত আগামী দশ বছরের অ্যাকশন প্ল্যানের ওপর আলোচনা হবে। এ প্রেক্ষাপটে আঙ্কটাড এর ১৫তম অধিবেশনের প্রাক-প্রস্তুতি হিসেবে স্বল্পোন্নত দেশ সমূহের বাণিজ্যমন্ত্রীদের বৃহস্পতিবারের সম্মেলনটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ছিল বলে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের তরফে উল্লেখ করা হয়েছে।

ঢাকা চেম্বার অফ কমার্স এন্ড ইণ্ডাসট্রিজ এর সাবেক সভাপতি আবুল কাশেম খানের কাছে এলডিসি গ্রুপের পক্ষ থেকে বিশ্ব বাণিজ্য সংস্থা (ডব্লিউটিও) এর অগ্রাধিকার বাণিজ্য সুবিধার সময় সীমা ১২ বছর বাড়ানোর যে প্রস্তাব করা হয়েছে সে বিষয়ে ভয়েস অফ আমেরিকার পক্ষে তাঁর মতামত জানতে চাইলে তিনি বলেন এটি একটি অত্যন্ত যুক্তিপূর্ণ প্রস্তাব এবং উন্নত দেশগুলোর উচিত এ প্রস্তাব মেনে নেয়া। বিশেষ করে করোনা মহামারির কারণে বাংলাদেশসহ স্বল্প উন্নত দেশগুলো যে ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে তা কাটিয়ে উঠতে ডব্লিউটিও এর

অগ্রাধিকার বাণিজ্য সুবিধার সময় সীমা বাড়ানোর গুরুত্ব অপরিসীম বলে তিনি উল্লেখ করেন।

XS
SM
MD
LG