অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার ব্যাপারে ইউনিসেফ-ইউনেস্কোর পরামর্শে সায় নেই বাংলাদেশের


কয়েকজন স্কুল শিক্ষার্থী -ফাইল ফটো

ইউনিসেফ ও ইউনেস্কোর পরামর্শে সায় নেই বাংলাদেশের। আন্তর্জাতিক সংস্থা দুটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার পক্ষে মত দিয়েছিল। বলেছিল, আর অপেক্ষা নয়- এখনই খুলে দেয়া দরকার।শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি এক ভার্চ্যুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এই পরামর্শেরসঙ্গে সরাসরি দ্বিমত পোষণ করেছেন। 

ইউনিসেফ ও ইউনেস্কোর পরামর্শে সায় নেই বাংলাদেশের। আন্তর্জাতিক সংস্থা দুটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার পক্ষে মত দিয়েছিল। বলেছিল, আর অপেক্ষা নয়- এখনই খুলে দেয়া দরকার।শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি এক ভার্চ্যুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এই পরামর্শেরসঙ্গে সরাসরি দ্বিমত পোষণ করেছেন।

তার ভাষায়, করোনাভাইরাস যে হারে বাড়ছে, যেখানে প্রাণহানির ঘটনা ঘটছে সেখানে আমরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার ঝুঁকি নিতে পারি না। ১৬ মাস ধরে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। প্রায় চার কোটি শিক্ষার্থীর ভবিষ্যৎ অনেকটা অনিশ্চিত।

এক যৌথ বিবৃতিতে ইউনিসেফ ও ইউনেস্কো বলেছিল, স্কুলে যেতে না পারার কারণে তরুণ জনগোষ্ঠী ক্ষতির সম্মুখীনহচ্ছে। তা কখনো পুষিয়ে নেয়া যাবে না। তাদের মানসিক সংকট হচ্ছে। সহিংসতা ও নির্যাতনের সম্মুখীন হচ্ছে শিক্ষার্থীরা। তাই স্কুলগুলো খুলে দেয়ার জন্য শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের টিকা নেয়ার জন্য অপেক্ষা করা যায় না। বিশ্বে মাত্র ১৯টি দেশে এই মুহূর্তে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে।

শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বলেছেন, আমরা মনে করি যত দ্রুত সম্ভব শিক্ষার্থীদের শ্রেণিকক্ষে পাঠাতে। এখনঅনলাইন টিভির মাধ্যমে পাঠদান ও অ্যাসাইনমেন্ট পদ্ধতি কোনোটাই শ্রেণিকক্ষের বিকল্প নয়।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যখনই শিক্ষার্থীরা আসে তখন তার শারীরিক ও মানসিক বিকাশের যে সুযোগ থাকে অনলাইনে সে সুযোগ নেই। এটি বুঝার জন্য বা জানবার জন্যদাতা সংস্থার পরামর্শের প্রয়োজন পড়ে না।

ওদিকে শিক্ষামন্ত্রী জানিয়েছেন, এ বছরের নভেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে এসএসসি ও ডিসেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে এইচএসসি পরীক্ষানেয়ার চিন্তাভাবনা করা হচ্ছে।

আর যদি একান্তই নেয়া সম্ভব না হয় তাহলে অ্যাসাইনমেন্ট ও ম্যাপিংয়ের মাধ্যমে মূল্যায়ন করা হবে। মন্ত্রী অবশ্য বলেন, এসএসসি পরীক্ষার্থীদেরকে ১২ সপ্তাহে ২৪টি অ্যাসাইনমেন্ট করতে হবে। প্রতি সপ্তাহে করতে হবে দুটি করে অ্যাসাইনমেন্ট।

XS
SM
MD
LG