অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

জাতিসংঘের মানবিক সাহায্য বিষয়ক কর্মকর্তার ইথিওপিয়া সফর


জাতিসংঘের মানবিক বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারী জেনারেল মার্টিন গ্রিফিথস

ইথিওপিয়ায় সংঘাত ও প্রাকৃতিক দুর্যোগের ফলে সৃষ্ট মানবিক সঙ্কটের মধ্যে বৃহস্পতিবার জাতিসংঘের মানবিক সাহায্য বিষয়ক শীর্ষ কর্মকর্তা সে দেশে প্রথম আনুষ্ঠানিক সফর শুরু করেছেন।

জাতিসংঘের মানবিক বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারী জেনারেল এবং জরুরি ত্রাণ সমন্বয়কারী মার্টিন গ্রিফিথস এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, টিগ্রায় ও বেনিশাঙ্গুল-গুমুজ এলাকায় সশস্ত্র সংঘাতের ফলে এই বছর মানবিক সাহায্য চাহিদা বৃদ্ধি পেয়েছে। এছাড়া আফার, সোমালি এবং এসএনএনপি অঞ্চলের কিছু অংশে আন্তঃ সাম্প্রদায়িক সহিংসতা এবং সোমালিয়া, ওরোমিয়া এবং আফার অঞ্চলে খরার প্রভাবে মানবিক সংকট সৃষ্টি হয়েছে।

গ্রিফিথস ছয় দিনের জন্য ইথিওপিয়া সফর করছেন। এই সময় তিনি ঊর্ধ্বতনো সরকারী কর্মকর্তা এবং মানবিক ও দাতা গোষ্ঠীর প্রতিনিধিদের সাথে সাক্ষাৎ করবেন বলে আশা করা হচ্ছে।

বিবৃতি জানানো হয়েছে, ক্ষতিগ্রস্থ বেসামরিক লোকদের কথা নিজ কানে শোনার জন্য এবং সেখানে মানবিক সাহায্য কর্মীরা যেসব চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করছেন, তা দেখার জন্য তিনি উত্তর টিগ্রায় অঞ্চল পরিদর্শন করার পরিকল্পনা করছেন।

জাতিসংঘ বলেছে, টিগ্রায় অঞ্চলের জনসংখ্যার প্রায় ৯০ ভাগ অর্থাৎ প্রায় ৫২ লক্ষ মানুষের মানবিক সহায়তা প্রয়োজন।

জাতিসংঘ বলছে, তাদের ৯০টিরও বেশি সংস্থার সাথে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক সংস্থা একযোগে দেশের এই মানবিক সংকট মোকাবেলায় কাজ করছে।

ইরিত্রিয়ান শরণার্থী
ইরিত্রিয়ান শরণার্থী

গ্রিফিথস বৃহস্পতিবার তাঁর সফর শুরু করছেন। টিগ্রায় অঞ্চলে যুদ্ধের কারণে দুটি শরণার্থী শিবিরে আটকা পড়া আত্মীয় এবং বন্ধুদের নিরাপদে সরিয়ে নেবার দাবীতে একই দিন শত শত ইরিত্রিয়ান শরণার্থী আদ্দিস আবাবায় জড়ো হয়ে প্রতিবাদ করে। জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক হাইকমিশনারের প্রতি তারা ঐ আহ্বান জানায়।

ইরিত্রিয়ান শরণার্থী
ইরিত্রিয়ান শরণার্থী

জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআর চলতি সপ্তাহে জানিয়েছে যে শিবিরগুলিতে ১৪ই জুলাই তাঁদের প্রবেশাধিকার বন্ধ হয়ে গেছে।

যুক্তরাষ্ট্র এই সপ্তাহের শুরুর দিকে বলেছে, তাঁরা টিগ্রায়ে ইরিত্রিয়ান শরণার্থীদের অবস্থা নিয়ে উদ্বিগ্ন।

XS
SM
MD
LG