অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

যুক্তরাষ্ট্রে স্থায়ী ভিসা পাবার অপেক্ষা কমাতে বিল পেশ 


যুক্তরাষ্ট্রের সিটিজেনশিপ অ্যান্ড অ্যান্ড ইমিগ্রেশন সার্ভিসেসের পক্ষ থেকে গ্রিন কার্ডের স্যাম্পল ফটো- ইউএসআইএস/এপি

যুক্তরাষ্ট্রে কাজের ভিসা নিয়ে যেসব ভারতীয় বসবাস করছেন, এবং যাঁদের গ্রিন কার্ড বা স্থায়ী ভিসার আবেদন দীর্ঘদিন অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে, তাঁরা শীঘ্রই 'সাপ্লিমেন্টাল ফি' বা চলতি কথায় 'সুপার ফি' জমা দিয়ে জমে থাকা আবেদনের লাইন পার হয়ে স্থায়ী ভিসা বা গ্রিন কার্ড পেতে পারেন। একই সঙ্গে 'এইচ-ওয়ান বি' ভিসাধারীদের সন্তানরা, যাঁদের শিক্ষা ও স্কলারশিপ পাওয়ার বয়স পেরিয়ে যেতে চলেছে, তাঁরাও একইভাবে সাপ্লিমেন্টাল ফি দিয়ে স্থায়ী ভিসা বা নাগরিকত্ব পেতে পারেন।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি সভার বিচার বিভাগীয় কমিটি, যাঁরা অভিবাসন সংক্রান্ত দায়িত্বে রয়েছেন, তাঁরা এ সংক্রান্ত একটি বিল পেশ করেছেন। সেটি আইনে পরিণত হলেই এই সুবিধাগুলো পাওয়া যাবে।

উল্লেখ্য, প্রতিবছর যুক্তরাষ্ট্র কর্মভিত্তিক আবেদনকারীদের জন্য এক কোটি ৪০ হাজার গ্রিন কার্ড অনুমোদন করে। তবে তার মধ্যে প্রতিটি দেশের জন্য সীমা নির্ধারিত রয়েছে ৭% করে। যুক্তরাষ্ট্রে যেহেতু এই ধরনের আবেদনকারীর মধ্যে ভারতীয়দের সংখ্যা অনেক এবং তাঁদের বেশিরভাগেরই 'এইচ-ওয়ান বি' ভিসা রয়েছে, বর্তমান ভিসানীতি তাঁদের জন্য খুবই অসুবিধার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এখন ভিসা সংক্রান্ত প্রস্তাবিত এই বিলটি পাশ হলে এদের অপেক্ষায় সময় অনেকটাই কমে যাবে।

যুক্তরাষ্ট্রের অভিবাসন সংক্রান্ত আইনজ্ঞরা এই বিলটিকে স্বাগত জানিয়েছেন এবং বলেছেন ভারতীয়দের মধ্যে যাঁরা অত্যন্ত শিক্ষিত ও বিশেষ বিশেষ কাজের জন্য উপযুক্ত, তাঁরা কাজ না পেলে শুধু তাঁদের নয়, যুক্তরাষ্ট্রেরও ক্ষতি। এঁদের বেশির ভাগকেই দেড় হাজার ডলার সাপ্লিমেন্টাল ফি দিতে হবে।

XS
SM
MD
LG