অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সমিতির সাধারণ সম্পাদক পদে জায়েদ খানের পরিবর্তে নিপুণকে জয়ী ঘোষণা–বিএফডিসিতে সদস্য পদ হারানো শিল্পীদের বিক্ষোভ


জায়েদ খান ও অভিনেত্রী নিপুণ

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সমিতির সাধারণ সম্পাদকের পদ হারালেন জায়েদ খান। তার বদলে পদটিতে জয়ী ঘোষণা করা হয়েছে অভিনেত্রী নিপুণকে।

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সমিতির নির্বাচনের দিন থেকে জায়েদ খানকে নিয়ে নানান বিতর্কের শুরু হয়। তবে সবকিছু ছাপিয়ে এবারও টানা তিনবারের মতো সাধারণ সম্পাদক পদে জয়ী হয়েছিলেন তিনি। কিন্তু ফলাফলের বিষয়টি নিয়ে একই পদে নির্বাচন করা প্রার্থী নিপুণ আক্তার লিখিত অভিযোগ জানান নির্বাচনের আপিল বোর্ডের কাছে।

এ নিয়ে বেশ কয়েকদিন জল ঘোলা হওয়ার পর অবশেষে আপিল বোর্ডের সিদ্ধান্তে তা পরিস্কার হলো। বিদায় নিতে হচ্ছে জায়েদ খানকে। বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক পদ থেকে তাকে অপসারণের সিদ্ধান্তের কথা জানান আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান চলচ্চিত্র নির্মাতা সোহানুর রহমান সোহান।

সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মোতাবেক শনিবার (৫ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন করপোরেশনে (বিএফডিসি) সাধারণ সম্পাদক পদে জায়েদ খান ও কার্যকরী সদস্য পদে চুন্নুর নির্বাচন আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ নিয়ে বৈঠকে বসে আপিল বোর্ড। সেখানে উপস্থিত ছিলেন আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান সোহানুর রহমান সোহান, বোর্ডের সদস্য মোহাম্মদ হোসেন, দুই নির্বাচন কমিশনার জাহিদ হোসেন ও বি এইচ নিশান। সভায় নিপূণ উপস্থিত থাকলেও জায়েদ খান উপস্থিত ছিলেন না।

আপিল বোর্ডের সভায় নির্বাচনে অনিয়ম করার অভিযোগে জায়েদ খানের পদ বাতিল করা হয়। তার পরিবর্তে অপর প্রার্থী নিপুণ বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী ঘোষণা করা হয়েছে।

এদিকে বিগত সময়ে সমিতির সদস্য পদ হারানো শিল্পীরা এদিন বিএফডিসিতে বিক্ষোভ করেন। আপিল বোর্ডের সভা শুরু হওয়ার আগে থেকে বিএফডিসিতে উপস্থিত হন এই শিল্পীরা। তারা কেউ দল বেঁধে, কেউ গায়ে প্রতিবাদী শ্লোগান লিখে তাদের অধিকার হরণের অভিযোগ করেন জায়েদের বিরুদ্ধে।

ভোটাধিকার হারানো শিল্পী সেখানে মিছিল করে ও স্লোগান দিয়ে উত্তাপ ছড়ান। তারা জায়েদ খানের বিরুদ্ধে সমস্বরে “জায়েদ খানের পদত্যাগ চাই”, “উই ওয়ান্ট জাস্টিস” স্লোগান দেন। এ সময় বিএফডিসির মূল ফটক থেকে ক্যানটিন, পরিচালক সমিতি, শিল্পী সমিতি, বাগানসহ সর্বত্র শিল্পীদের পদচারণায় উত্তপ্ত ছিল।

উল্লেখ্য, গত ২৮ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হয়েছিল শিল্পী সমিতির দ্বিবার্ষিকী নির্বাচন। এবার সভাপতি পদে জয়ী হয়েছেন ইলিয়াস কাঞ্চন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন গত দুই বারের সভাপতি মিশা সওদাগর। আর আজকের আপিল বোর্ডের রায়ে সাধারণ সম্পাদক পদে জায়েদ খানকে হারিয়ে জয়ী হলেন নিপূণ আক্তার।

এবার শিল্পী সমিতির নির্বাচনে ভোটার সংখ্যা ছিল ৪২৮ জন। ভোট দিয়েছেন ৩৬৫ জন।

XS
SM
MD
LG