অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

প্রেমের টানে বাংলাদেশে আসা ভারতীয় কিশোরীকে ফেরত পাঠানো হলো


ভারতীয় কিশোরীকে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর কাছে হস্তান্তর করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ।

প্রেমের টানে বাংলাদেশে চলে আসা ভারতীয় কিশোরী মোছা. খুসনামাকে (১৭) ভারতে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

শুক্রবার তেঁতুলিয়া উপজেলার পুরাতন বাজারের তেলীপাড়া নামক স্থানে ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তের জিরো লাইনের মেইন পিলার ৪৪২ ও ৪৪৩ এর মধ্যবর্তী স্থানে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ)-এর মধ্যে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে তাকে ফেরত পাঠানো হয়। এসময় ওই কিশোরীর বাবা-মাসহ পরিবারের সদস্যরাও উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ ও বিজিবি সূত্রে জানা গেছে, বৈঠক শেষে বিজিবি ও পুলিশ খুসনামাকে বিএসএফের হাতে সোপর্দ করে। পরে বিএসএফ তাকে তার পরিবারের সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করেন।

উল্লেখ্য, ভারতের উত্তর দিনাজপুর জেলার গোয়ালপুকুর থানার হরিয়ানি গ্রামের ইসমাইল হোসেনের মেয়ে কিশোরী খুসনামা গত বৃহস্পতিবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) তেঁতুলিয়া উপজেলার তেঁতুলিয়া ইউনিয়নের মহানন্দা নদী পেরিয়ে ঈদগাহ বস্তি এলাকায় প্রবেশ করে।

খবর পেয়ে তেঁতুলিয়া মডেল থানার পুলিশ দুপুরে তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। পুলিশ বিষয়টি বিজিবিকে অবহিত করলে বিজিবি বিএসএফের মধ্যে আলোচনা সাপেক্ষে পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে তাকে ফেরত নেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়।

পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদে ভারতীয় ওই কিশোরী জানায়, ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার রতনদিঘী গ্রামের ইসরাইল হোসেনের ছেলে আব্দুল লতিফ রকিব (২১) এর সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক ছিল।ভারতের কেরালা প্রদেশের এক হোটেলে তার ভাইয়ের সঙ্গে কাজ করত রকিব। তখনি তাদের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। পরে তারা বিয়ে করে।

তবে পুলিশের কাছে সে কোন প্রমাণপত্র দেখাতে পারেনি।

ভারতীয় সীমান্ত পেরিয়ে ওই তরুণী তার প্রেমিকের সঙ্গেই বাংলাদেশে প্রবেশ করে বলে পুলিশের ধারণা করে।

অবশ্য খুসনামার আটকের খবর পেয়ে তার প্রেমিক আব্দুল লতিফও থানায় আসে।

বিজিবি তেঁতুলিয়া কোম্পানী কমান্ডার সুবেদার সুবেদার মো. আব্দুল মোতালেব ও তেঁতুলিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু ছায়েম মিয়া বিজিবি, বিএসএফ ও পুলিশের সমন্বয়ে অনুষ্ঠিত পতাকা বৈঠকে ভারতীয় কিশোরী খুসনামাকে ফেরত দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বৈঠকে বিজিবি তেঁতুলিয়া ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার সুবেদার মো. আব্দুল মোতালেব, তেঁতুলিয়া মডেল থানার উপ-পরিদর্শক তপন কুমার, ভারতের ২৭৬ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের অ্যাসিসট্যান্ট কমান্ড্যান্ট কামাল সিং, ইন্সপেক্টর উপেন্দ্র সিং, প্রমোদ কুমার, ভারতের গোয়ালপুকুর থানার কনস্টেবল দিলিপ কুমার সরকারসহ উভয় দেশের জনপ্রতিনিধিবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

XS
SM
MD
LG