অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ইউক্রেনে ফক্স নিউজের ক্যামেরাম্যান ও ইউক্রেনীয় সাংবাদিক নিহত


ফক্স নিউজ প্রকাশিত ছবিতে কিয়েভে সহকর্মীদের সঙ্গে ফক্স নিউজের সাংবাদিক পিয়েরে জাকরজেউস্কিকে দেখা যাচ্ছে। (ছবি- এপি)

ইউক্রেনের যুদ্ধের প্রতিবেদন করতে গিয়ে সোমবার (১৪ মার্চ) একটি হামলায় ফক্স নিউজের সাংবাদিক পিয়েরে জাকরজেউস্কি এবং ইউক্রেনীয় সাংবাদিক ওলেক্সান্দ্রা কুভশিনোভা নিহত হন। ফক্স নিউজের সংবাদদাতা বেঞ্জামিন হলও ওই হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের সম্প্রচার সংস্থা “ফক্স নিউজ” মঙ্গলবার ঘোষণা করেছে যে, তাদের ক্যামেরাম্যান জাকরজেউস্কি ইউক্রেনে এক হামলায় মারা গেছেন। একই হামলায় ২৪ বছর বয়সী ইউক্রেনীয় সাংবাদিক কুভশিনোভাও নিহত হয়েছেন।

৫৫ বছর বয়সী জাকরজেউস্কি সম্প্রচারকারী দলের সঙ্গে একটি গাড়িতে ছিলেন। কিয়েভের কাছে হোরেঙ্কায় গাড়িটিতে আগুন লাগলে তিনি নিহত হন।

ইউক্রেনের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর উপদেষ্টা আন্তন গেরাশচেঙ্কো বলেছেন, কুভশিনোভা একজন ইউক্রেনীয় সাংবাদিক, যিনি সেই সময়ে বাকিদের সঙ্গে ছিলেন, তিনিও নিহত হয়েছেন।

বেঞ্জামিন হল ফক্সের পররাষ্ট্র দপ্তরের সংবাদদাতা, তিনি এখনো হাসপাতালে ভর্তি এবং চিকিৎসা নিচ্ছেন।

বেঞ্জামিন হল ও জাকরজেউস্কি দুজনই অভিজ্ঞ সাংবাদিক ছিলেন। তারা আফগানিস্তান, ইরাক ও সিরিয়ার সংঘাত নিয়ে প্রতিবেদন করেছেন।

জাকরজেউস্কির স্মরণ স্মারকে ফক্স নিউজ মিডিয়ার সিইও সুজান স্কট বলেছেন যে, লন্ডনভিত্তিক কর্মী জাকরজেউস্কির “প্রতিভা অতুলনীয় ছিল”।

জাকরজেউস্কি “ঘটনা তুলে ধরতে গভীরভাবে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ ছিলেন এবং তার সাহসিকতা, পেশাদারত্ব এবং কাজের নীতি অসাধারণ ছিল”, জাকরজেউস্কি স্মরণে লেখা স্মারকে বলা হয়। “গণমাধ্যমের প্রত্যেকে যারা বিদেশি প্রতিবেদন করেছে তারা পিয়েরকে জানত এবং সম্মান করত”।

সাংবাদিকেরা জাকরজেউস্কি ও কুভশিনোভার কাজ স্মরণ করে তাদের শ্রদ্ধা জানিয়েছেন।

গত বছর তালিবান ক্ষমতা দখলের সময় আফগান সাংবাদিকদের নিরাপদে আফগানিস্তান থেকে বের করে আনতে সাহায্যের চেষ্টা করার জন্য জাকরজেউস্কিকে সামাজিক মাধ্যমে তার বন্ধুরা স্মরণ করেন।

ফক্স নিউজের উপস্থাপক বিল হেমার মঙ্গলবার নেটওয়ার্কে জাকরজেউস্কির মৃত্যুর ঘোষণা দিয়েছেন। তিনি তার সহকর্মীকে “একজন পরম কিংবদন্তি” হিসেবে বর্ণনা করেছেন।

মঙ্গলবার একটি ব্রিফিংয়ে, হোয়াইট হাউসের প্রেস সেক্রেটারি জেন সাকিও জাকরজেউস্কিকে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস বলেছেন, ইউক্রেনে বেসামরিক নাগরিক বা সাংবাদিকদের ইচ্ছাকৃতভাবে লক্ষ্যবস্তু করা হচ্ছে প্রমাণিত হলে “খুব গুরুতর প্রতিক্রিয়া হবে”।

[ভয়েস অফ আমেরিকার পররাষ্ট্র দপ্তরের ব্যুরো চিফ নাইকি চিং এবং নাতাশা মোজগোভায়া এই প্রতিবেদন লেখায় ভূমিকা রেখেছেন]

XS
SM
MD
LG