অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

১৩৩ যাত্রীসহ চীনা বিমান বিধ্বস্ত—জানিয়েছে রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম


বেইজিং এর ড্যাক্সিং বিমানবন্দর থেকে বিমান উড্ডয়নের সময় মোবাইলে ছবি তুলছেন স্থানীয় দুজন অধিবাসী। (ফাইল ছবি- এপি)

বেইজিং—মোট ১৩৩ জন আরোহী নিয়ে একটি চীনা বিমান সোমবার (২১ মার্চ) দক্ষিণাঞ্চলীয় প্রদেশ গুয়াংজিতে বিধ্বস্ত হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম।

সম্প্রচারমাধ্যম সিসিটিভি জানিয়েছে যে, চায়না ইস্টার্ন এয়ারলাইন্সের একটি বোয়িং ৭৩৭ টেং কাউন্টির উঝো শহরের কাছে দুর্ঘটনা কবলিত হয়।

এতে বলা হয়, উদ্ধারকারীদের ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়েছে এবং মৃত্যু বা আহতের সংখ্যা সম্পর্কে তাৎক্ষণিকভাবে নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

সাংহাইভিত্তিক চায়না ইস্টার্ন চীনের শীর্ষ তিনটি এয়ারলাইনগুলোর মধ্যে একটি। প্রতিষ্ঠানটি ২৪৮টি গন্তব্যে অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করে।

ফ্লাইট-ট্র্যাকিং ওয়েবসাইট ফ্লাইট রাডার ২৪-এর তথ্য অনুযায়ী, যে ফ্লাইটটি বিধ্বস্ত হয়েছে সেটি কুনমিং থেকে গুয়াংজু যাওয়ার ফ্লাইট এবং এর নম্বর এমইউ৫৭৩৫ বলে মনে হচ্ছে। এতে দেখা যায়, বোয়িং ৭৩৭-৮৯ পি ফ্লাইটটি তীব্র গতিতে নিচে নেমে পরে দ্রুতগতি হারিয়ে ফেলে।

বিমানটি চীনের উঝো শহরের দক্ষিণ-পশ্চিমে পৌঁছে ডেটা আদান-প্রদান বন্ধ করে দেয়।

শিকাগোভিত্তিক বোয়িং অফিসে যোগাযোগ করা হলে, তারা কোনো সাড়া দেয়নি।

বিমানটি জুন ২০১৫ সালে বোয়িং থেকে চায়না ইস্টার্নে সরবরাহ করা হয়েছিল এবং ছয় বছরেরও বেশি সময় ধরে উড়ছিল।

দুই-ইঞ্জিন, একক করিডোরবিশিষ্ট বোয়িং ৭৩৭, স্বল্প ও মাঝারি দূরত্বের ফ্লাইটের জন্য বিশ্বের অন্যতম জনপ্রিয় বিমান।

চীনের সর্বশেষ মারাত্মক দুর্ঘটনাটি ঘটে ২০১০ সালে, একটি বেসামরিক জেটলাইনারের।

XS
SM
MD
LG