অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

বিধ্বস্ত বিমানের দ্বিতীয় ব্ল্যাক বক্স খুঁজে পেয়েছে চীন—জানিয়েছে রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম


ফাইল ছবি—সিনহুয়া নিউজ এজেন্সির অবমুক্ত করা এই ছবিতে দেখা যাচ্ছে উদ্ধারকারীরা দক্ষিণ চীনের গুয়াংজি ঝুয়াং স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চলের তেংজিয়ান কাউন্টিতে সোমবারের বিমান দুর্ঘটনার স্থানে বিমানের ধ্বংসাবশেষের একটি টুকরো বহন করে নিয়ে যাচ্ছেন৷ ২৫ মার্চ ২০২২

বেইজিং—চীনের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমে জানানো হয়েছে, উদ্ধারকারী দলের সদস্যরা দক্ষিণ চীনের পাহাড়ি এলাকায় বিধ্বস্ত চায়না ইস্টার্ন এয়ারলাইন্সের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ জেটের ধ্বংসাবশেষ থেকে আরেকটি ব্ল্যাক বক্স (ফ্লাইট ডেটা রেকর্ডার) খুঁজে পেয়েছেন।

সোমবার (২১ মার্চ) দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় শহর কুনমিং থেকে উপকূলীয় শহর গুয়াংঝুতে যাত্রাকালে এমইউ ৫৭৫৩ ফ্লাইটটিতে ১৩২ জন যাত্রী ছিলেন। অবতরণ করার ঠিক আগ দিয়ে সাধারণ উচ্চতা থেকে বিমানটি আছড়ে পড়ে।

বিমানটি বিধ্বস্ত হওয়ার পর জীবিত কোনো যাত্রীকে উদ্ধার করা আশা ক্ষীণ ছিল। শনিবার গভীর রাতে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে কর্মকর্তারা বিমানটির নয়জন ক্রুসহ সকল যাত্রীর মৃত্যু হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন।

১৯৯৪ সালের পর চীনের মূল ভূখণ্ডে এটিই সবচেয়ে মারাত্মক বিমান দুর্ঘটনা। ওই সময় জিয়ান থেকে গুয়াংঝুতে যাওয়ার পথে চায়না নর্থওয়েস্ট এয়ারলাইন্সের একটি বিমান বিধ্বস্ত হয়। এই দুর্ঘটনায় ১৬০ জন যাত্রীর সবাই নিহত হয়েছিলেন।

চায়না ইস্টার্ন এয়ারলাইন্সের বিমানটির দুর্ঘটনার কারণ এখনো জানা যায়নি।

অপর ব্ল্যাক বক্সটি (ককপিট ভয়েস রেকর্ডার) বুধবার উদ্ধার হয় এবং বিশেষজ্ঞদের পরীক্ষার জন্য সেটিকে বেইজিং পাঠানো হয়েছে।

XS
SM
MD
LG