অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

রাশিয়ান সামরিক বাহিনী কিয়েভের চারপাশে হামলা কমাবে


ইস্তাম্বুলে ইউক্রেনীয় এবং রাশিয়ান প্রতিনিধিদের মধ্যে আলোচনার আগে সাংবাদিকরা ডলমাবাহচে প্রাসাদের বাইরে কাজ করছেন। ২৯ মার্চ, ২০২২

ইউক্রেন এবং রাশিয়ান আলোচকরা ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসন বন্ধ করার লক্ষ্যে তুরস্কে শান্তি আলোচনার একটি নতুন পর্ব শুরু করার সাথে সাথে, রাশিয়ার সামরিক বাহিনী বলেছে যে তারা রাজধানী কিয়েভ এবং উত্তরের শহর চেরনিহিভের চারপাশে অভিযান বন্ধ করবে।

রাশিয়ার উপ-প্রতিরক্ষামন্ত্রী আলেকজান্ডার ফোমিন বলেছেন, যুদ্ধ শেষ করার লক্ষ্যে আলোচনায় "আস্থা বাড়াতে" এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। ইউক্রেনের যোদ্ধাদের প্রচণ্ড বিরোধিতার মধ্যে সম্প্রতি রুশ বাহিনীর অগ্রযাত্রা স্থবির হয়ে পড়ে।

এছাড়াও মঙ্গলবার, রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রী সার্গেই শোইগু বলেছেন যে রুশ বাহিনী ডনবাসের উপর দৃষ্টি নিবদ্ধ করবে, যার মধ্যে লুহানস্ক এবং দোনেস্কের বিচ্ছিন্ন অঞ্চল অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। তিনি বলেন, ইউক্রেনের সামরিক সক্ষমতা হ্রাস সহ মস্কো তার "বিশেষ সামরিক অভিযান" এর প্রথম পর্যায়টি মূলত সম্পন্ন করেছে।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ২৪শে ফেব্রুয়ারি আক্রমণ শুরু করার কয়েকদিন আগে পূর্ব ইউক্রেনের অঞ্চল লুহানস্ক এবং ডোনেটস্ককে স্বাধীন রাষ্ট্র হিসাবে ঘোষণা করেছিলেন।

সিবিএস নিউজ অনুসারে, যুদ্ধের সর্বসাম্প্রতিক অবস্থা সম্পর্কে মঙ্গলবার যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স এবং ইতালির নেতাদের আলোচনা করার কথা।

এ দিকে ইস্তাম্বুলে আলোচনা শুরু হবার আগে রাশিয়া ও ইউক্রেনের আলোচকদের উদ্দেশে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রেচেপ তাইয়েপ এরদোয়ান টিভিতে সম্প্রচারিত বক্তৃতায় বলেন, একটি সুনির্দিষ্ট চুক্তিতে পৌঁছানো এবং “এই ট্র্যাজেডির অবসান ঘটানো”র ব্যাপারগুলো উভয় পক্ষের ওপর নির্ভরশীল।

রোববার রাশিয়ান সাংবাদিকদেরকে ফোনে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেন্সকি বলেছেন তৃতীয় পক্ষ নিশ্চয়তা দিলে এবং গণভোট হলে শান্তি চুক্তির অংশ হিসেবে নিরপেক্ষ অবস্থান গ্রহণের জন্য ইউক্রেন রাজি।

আলোচনা শুরু হওয়ার কয়েক ঘণ্টা আগে প্রেসিডেন্ট জেলেন্সকি বলেন, মস্কোর বিরুদ্ধে আরোপিত পশ্চিমা দেশগুলোরে নিষেধাজ্ঞাগুলো “কার্যকর এবং যথেষ্ট” হতে হবে যাতে সেগুলো রাশিয়ার অর্থনীতিতে অভিপ্রেত প্রভাব ফেলতে পারে।

এদিকে আমেরিকার একজন ঊর্ধ্বতন প্রতিরক্ষা কর্মকর্তা সাংবাদিকদের বলেছেন যে, ইউক্রেনীয় সেনারা উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় শহর সুমির কাছে অবস্থিত ট্রস্টিয়ানেটস শহরটি পুনরুদ্ধার করেছে। অন্যদিকে জেলেন্সকি তার সোমবার রাতের বক্তৃতায় বলেছিলেন, ইউক্রেনীয় সেনারা কিয়েভের শহরতলি ইরপিনকে মুক্ত করেছে।

জাতিসংঘ বলেছে যে, ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসনের ফলে ১ কোটি মানুষ গৃহহীন হয়েছে, দেশ ছেড়ে পালিয়েছে ৩৮ লাখেরও বেশি মানুষ।

XS
SM
MD
LG