অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী  ইউক্রেন সংকট নিয়ে ভারতের অবস্থানের প্রশংসা করলেন


India Rusপররাষ্ট্রমন্ত্রী জয়শঙ্কর এবং রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ ১লা এপ্রিল সালে ভারতের নয়াদিল্লিতে একটি বৈঠক করেন। এই ছবিটি পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্করের টুইটার হ্যান্ডেল থেকে দেয়া sia

রাশিয়র পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ ইউক্রেন সংকটকে 'একতরফাভাবে' বিচার না করার জন্য ভারতের প্রশংসা করে বলেন, উভয় দেশ বাণিজ্যের ক্ষেত্রে তাদের স্থানীয় মুদ্রা ব্যবহারের উপায় খুঁজে বের করবে।

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী শুক্রবার নতুন দিল্লি সফরের সময় বলেন, "অতীতের অনেক কঠিন সময় আমাদের সম্পর্ক খুব মজবুত ছিল," আমরা কৃতজ্ঞ যে ভারত এই পরিস্থিতিকে পরিপূর্ণ বাস্তবতা হিসেবে গ্রহণ করছে।

ইউক্রেনে আক্রমেণের কারণে মস্কোর বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নিতে নতুন দিল্লিকে পশ্চিমা দেশগুলির সাথে যোগ দেওয়ার জন্য তীব্র চাপের সম্মুখীন হতে হচ্ছে।

ভারত এই আক্রমেণের নিন্দা করেনি বরং মস্কোকে নিন্দা জানানোর জন্য জাতিসংঘের প্রস্তাবগুলিতে অংশ নেয়া থেকে বিরত থেকেছে এবং রাশিয়া থেকে ছাড়যুক্ত দামে অপরিশোধিত তেল কেনার চুক্তি সম্পাদনের চেষ্টা করায় যুক্তরাষ্ট্র এবং তার মিত্রদের বিরক্তিভাজন হয়েছে।

ল্যাভরভ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সাথেও দেখা করেন। মোদী জানিয়েছেন যে তার দেশ শান্তি প্রচেষ্টায় কাজ করতে প্রস্তুত রয়েছে।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রক জানিয়েছে, ল্যাভরভের সঙ্গে আলোচনার সময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুব্রমানিয়াম জয়শঙ্কর ইউক্রেনে সহিংসতা বন্ধ, শত্রুতার অবসান ঘটানোর ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন এবং সংলাপ ও কূটনীতির মাধ্যমে মতপার্থক্য নিরসনের আহ্বান জানান।

ল্যাভরভ চীন থেকে ভারত সফরে যান। চীন আগ্রাসনের নিন্দা জানায়নি। ল্যাভরভ পশ্চিমা সমাজের কঠোর নিষেধাজ্ঞার মুখে মস্কোর দুটি বড় এশীয় মিত্রদেশের সমর্থন বাড়ানোর চেষ্টা করছেন বলেই মনে করা হচ্ছে।

ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনার পর সংবাদদাতাদের সঙ্গে আলাপকালে ল্যাভরভ বলেন, মস্কো বহু বছর আগে জাতীয় মুদ্রায় বাণিজ্য করার জন্য একটি সিস্টেম তৈরি করেছিল এবং ডলার, ইউরো এবং অন্যান্য প্রধান মুদ্রাকে পাশ কাটিয়ে ভারতের মতো দেশগুলির সাথে বাণিজ্যের জন্য এই পদ্ধতির মাধ্যমে "আরও বেশি লেনদেন" করা হবে।

ল্যাভরভ বলেন, রাশিয়া ভারতকে যে কোনও পণ্য সরবরাহ করতে প্রস্তুত। তিনি বলেন, “আমার কোনো সন্দেহ নেই যে, কৃত্রিম প্রতিবন্ধকতা যা পশ্চিমাদের অবৈধ, একতরফা নিষেধাজ্ঞার কারণে তৈরি হয়েছে সেগুলোকে পাশ কাটিয়ে যাওয়ার একটি উপায় খুঁজে পাওয়া যাবে। এটি সামরিক প্রযুক্তিগত সহযোগিতার ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য ।”

XS
SM
MD
LG