অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

পোর্টো রিকোর কাছে নৌকাডুবিতে ১১ জন নিহত, ৩১ জনকে জীবিত উদ্ধার


পোর্টো রিকোর ডেসেশিও দ্বীপের উত্তরে নৌকা উল্টে যাওয়ার পর, ঘটনাস্থলে উদ্ধারকারী নৌযান এসে পৌঁছাতে দেখা যাচ্ছে, ১২ মে ২০২২। বিমানের ক্যামেরা থেকে এই স্থিরচিত্রটি নেওয়া হয়েছে। (যুক্তরাষ্ট্রের উপকূলরক্ষী বাহিনীর কাছ থেকে রয়টার্সের মাধ্যমে পাওয়া)

সন্দেহভাজন অভিবাসন-প্রত্যাশীদের বহনকারী এক নৌকা, পোর্টো রিকোর নিকটবর্তী জনমানবশূন্য এক দ্বীপের উত্তরে উল্টে গিয়েছে। ঐ ঘটনায় ১১ জনের মৃত্যু নিশ্চিত করা হয়েছে এবং বৃহস্পতিবার আরও ৩১ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে বলে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।

তবে, নৌকা উল্টে যাওয়ার সময়ে সেটিতে কয়জন ছিলেন, সে বিষয়টি তাৎক্ষণিকভাবে পরিষ্কার নয় বলে, যুক্তরাষ্ট্রের উপকূলরক্ষী বাহিনীর মুখপাত্র রিকার্ডো ক্যাস্ট্রোড্যাড জানান। তিনি বলেন যে, এখনও এক “ব্যাপক উদ্ধার অভিযান” চলছে।

হাইতির অন্তত আটজনকে এক হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। যদিও নৌকায় থাকা সকলের নাগরিকত্ব সম্পর্কে তাৎক্ষণিকভাবে কিছু জানা যায়নি।

ঐ অঞ্চলজুড়ে নৌকাডুবির যে সব ঘটনা ঘটছে তার মধ্যে সর্বসাম্প্রতিক ঘটনা এটি। নিজ দেশের সহিংসতা এবং দারিদ্র্য থেকে বাঁচতে, অভিবাসন-প্রত্যাশীরা হাইতি এবং ডমিনিকান রিপাবলিক থেকে পালানোর চেষ্টা করে আসছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরের আগে যুক্তরাষ্ট্রের কাস্টমস অ্যান্ড বর্ডার প্রটেকশন সংস্থার একটি হেলিকপ্টার উল্টে যাওয়া নৌকাটি দেখতে পায়।

ক্যাস্ট্রোড্যাড বলেন, “সেটি না হলে, আমরা এটি সম্পর্কে জানতে পারতাম না, যতক্ষণ পর্যন্ত না কেউ এটির কোন চিহ্ন খুঁজে পেত বা তাদের প্রিয়জনরা তাদের নিখোঁজ হওয়ার খবর জানাত।” তিনি আরও বলেন, “তারা ঘটনার পর তাদেরকে যথেষ্ট দ্রুত খুঁজে পাওয়ার ফলে আমরা এতে সমন্বিতভাবে সাড়া দিতে সক্ষম হয়েছি।”

পোর্টো রিকোর পশ্চিম উপকূলবর্তী ডেসেশিও নামের জনমানবহীন দ্বীপের ১৮ কিলোমিটার উত্তরে নৌকাটিকে সনাক্ত করা হয়। যুক্তরাষ্ট্রের উপকূলরক্ষী বাহিনী জানায় যে, উদ্ধারকৃতদের মধ্যে ২০ জন পুরুষ এবং ১১ জন নারী রয়েছেন।


XS
SM
MD
LG