অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

ইরান জানুয়ারি থেকে মার্চের মধ্যে ১০০ জনেরও বেশি মানুষকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে : জাতিসংঘ


ইরানের বিশেষ পুলিশ বাহিনীর একজন সদস্য ফাঁসি কার্যকর করার আগে দড়ি পরীক্ষা করছেন৷ তেহরান, 2 আগস্ট, 2007।

মঙ্গলবার উপস্থাপিত জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেসের একটি প্রতিবেদন অনুসারে, ইরান ২০২২ সালের প্রথম তিন মাসে ১০০ জনেরও বেশি মানুষকে মৃত্যুদন্ডে দন্ডিত করেছে যার ফলে এর ঊর্ধ্বমুখী উদ্বেগজনক প্রবণতা অব্যাহত রয়েছে।

জেনেভায় জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলের সামনে বক্তৃতা করার সময়, জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক উপ- প্রধান নাদা আল-নাশিফ ইরান সম্পর্কে গুতেরেসের সর্বশেষ প্রতিবেদন পেশ করেন, দেশটিতে মৃত্যুদণ্ডের ঘটনা বেড়েই চলেছে।

তিনি বলেন, "২০২০ সালে ২৬০ জনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হলেও, ২০২১ সালে কমপক্ষে ৩১০ জনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয় , যার মধ্যে কমপক্ষে ১৪ জন নারী ছিলেন," তিনি আরও বলেন, এই প্রবণতাটি এই বছরও অব্যাহত রয়েছে।

তিনি বলেন, ১লা জানুয়ারী থেকে ২০ মার্চের মধ্যে,"কমপক্ষে ১০৫ জনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়েছে , যাদের মধ্যে অনেকেই সংখ্যালঘু গোষ্ঠীর লোক৷”

নাশিফ বলেন, গুতেরেসের প্রতিবেদনে মাদক সংক্রান্ত অপরাধ সহ কম অপরাধের জন্য মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হওয়ার বিষয়টি গভীর উদ্বেগের সাথে উল্লেখ করা হয়েছে।

তিনি কাউন্সিলকে বলেন, "সবচেয়ে গুরুতর অপরাধ নয় এমন অভিযোগের ভিত্তিতে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হচ্ছে, যা ন্যায্য বিচারের মানদণ্ডের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়।”

নাশিফ বলেন, মার্চ মাসে মাদক সংক্রান্ত অভিযোগে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ৫২ জনকে ফাঁসির জন্য শিরাজ কারাগারে স্থানান্তর করা হয়।

তিনি আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘন করে কিশোর অপরাধীদের জন্য মৃত্যুদণ্ডের অব্যাহত রাখার জন্য দুঃখ প্রকাশ করেছেন।

XS
SM
MD
LG