অ্যাকসেসিবিলিটি লিংক

কন্টেন্ট মুছে ফেলা সংক্রান্ত ভারতের আদেশকে চ্যালেঞ্জ করেছে টুইটার


টুইটার অ্যাপ

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম কোম্পানি টুইটার ভারত সরকারের কন্টেন্ট অপসারণের আদেশের বিরুদ্ধে আইনি চ্যালেঞ্জ করেছে।

গত বছর ভারত সরকার নিয়ম পাস করে যার অধীনে ঘৃণাপূর্ণ, প্রতারণামূলক,মানহানিকর বা রাষ্ট্রের নিরাপত্তার জন্য হুমকিস্বরূপ এবং অন্যান্য বিভিন্ন কারণে সরকার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের পোস্ট বা ভিডিও অপসারণের আদেশ দিতে পারে। টুইটারের মামলাটি এই নিয়মের বিরুদ্ধে প্রথম আইনি চ্যালেঞ্জ।

গত বছর এই গুরুত্বপূর্ণ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে যে বিষয়বস্তুগুলো সরাতে বলা হয়েছিল তার মধ্যে কৃষকদের ব্যাপক প্রতিবাদ এবং ২০২১ সালের গ্রীষ্মে কোভিডের একটি মারাত্নক দ্বিতীয় ঢেউয়ের সময় সরকারের মহামারী পরিচালনার সমালোচনা সম্পর্কিত টুইটগুলো ছিল।

এই বিধিনিষেধগুলি ভারতে ইন্টারনেটের স্বাধীনতা নিয়ে প্রশ্ন উত্থাপন করেছে। সেখানে এখন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম কোম্পানিগুলির লক্ষ লক্ষ ব্যবহারকারী রয়েছে। ভারতে টুইটারের ২ কোটি ৪০ লাখেরও বেশি ব্যবহারকারী রয়েছে বলে অনুমান করা হয়।

টুইটারের সাথে ভারত সরকারের দ্বন্দ্বের একাধিক ঘটনা রয়েছে। গত বছরের মে মাসে পুলিশ নতুন দিল্লিতে টুইটারের কার্যালয় পরিদর্শন করে এবং নোটিশ প্রদান করার পরে এই গুরুত্বপূর্ণ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ভারতে মতপ্রকাশের স্বাধীনতা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছিল। দেশটির প্রধান দুটি রাজনৈতিক দলের একটি ভারতীয় জনতা পার্টির একটি টুইটকে “ম্যানিপুলেটেড মিডিয়া” হিসেবে চিহ্নিত করার পর পুলিশ এ নোটিশ প্রদান করেছিল।

XS
SM
MD
LG